ঢাকা ১২:০২ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২২, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

বাদ পড়ছেন সাব্বির, ওপেনিংয়ে ফিরবে লিটন

শেষ তিন বছর যাবত রান খরায় ভুগতে থাকা সাব্বির রহমানকে এশিয়া কাপে ফেরানো হয় জাতীয় দলে। টপ অর্ডারের ব্যর্থতার কারনেই মূলত দলে জায়গা পায় এই হার্ড হিটার। শুধু তাই নয়, খেলার সুযোগ পেয়েছিলেন ওপেনিংয়ে। কিন্তু ব্যাট হাতে প্রতিবারই চূড়ান্ত ব্যর্থ হচ্ছেন এই ক্রিকেটার। একের পর এক দলকে বাজে পারফরম্যান্স উপহার দেওয়ায় এবার তার উপর আস্থা হারিয়েছেন বাংলাদেশ দলের নতুন কোচ শ্রীধরন শ্রীরাম। তাই হয়তো বিশ্বকাপের আগে আসন্ন ত্রিদেশীয় সিরিজেই বেঞ্চে বসে থাকতে হতে পারে এই ক্রিকেটারকে।

টানা তিন ম্যাচে ওপেনিং করতে নেমে সাব্বির করেছেন ৫, ০ ও ১২ রান। তাই সাব্বিরে মোহভঙ্গ বিসিবির নির্বাচকদেরও। ৩০ বছর বয়সী এ ব্যাটারের জন্য একাদশে আর জায়গা খুঁজে পাচ্ছেন না কোচ শ্রীধরন শ্রীরাম। নিউজিল্যান্ডের ত্রিদেশীয় সিরিজে সাব্বিরের জায়গা ঠিক করা হয়েছে রিজার্ভ বেঞ্চে।

২০১৯ সালে জাতীয় দল পর্ব শেষ করে ফেলেছিলেন সাব্বির। গত তিন বছর টেস্ট, ওয়ানডে, টি২০ কোনো সংস্করণেই ছিলেন না তিনি। একের পর এক শৃঙ্খলা ভেঙে নিষেধাজ্ঞায় পড়েছিলেন। ঘরোয়া লিগে নজর কাড়ার মতো পারফরম্যান্সও ছিল না।

তবুও জাতীয় নির্বাচক প্যানেল মুগ্ধ ছিলেন সাব্বিরে। বাংলাদেশ ‘এ’ দলের ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে ৫০ ওভারের ম্যাচে একটি হাফ সেঞ্চুরি (৬২ রান) করেই সুযোগ পান এশিয়া কাপ দলে। এশিয়া কাপে আফগানিস্তানের বিপক্ষে নিয়মিত দুই ওপেনার এনামুল হক বিজয় ও নাঈম শেখের ব্যর্থতার সুযোগে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে মেকশিফট ওপেনার হিসেবে সাব্বিরকে খেলানো হয় মিরাজের সঙ্গে। মিরাজ তিন ম্যাচের দুই ইনিংসে রান করলেও সাব্বির প্রমাণ করে দেন জাতীয় দলের মানে আর নেই তিনি।

মিরাজ-সাব্বিরকে টানা তিন ম্যাচে সুযোগ দিয়ে দেখতে চেয়েছিলেন কোচ শ্রীরাম। আরব আমিরাতের বিপক্ষে সিরিজ নির্ধারণী দ্বিতীয় ম্যাচে পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষ হয়ে গেছে গতকালই। নিউজিল্যান্ডে সাব্বিরের জায়গায় খেলবেন নাজমুল হোসেন শান্ত। কিন্তু ওপেনিংয়ে ফিরিয়ে আনা হতে পারে লিটন দাসকে। সেই সাথে ওপেনিংয়ে মিরাজ তাকবে কিনা, সে সিদ্ধান্ত নিতে অধিনায়ক সাকিব আল হাসানের জন্য অপেক্ষা করতে হবে কোচকে।

Tag :
জনপ্রিয়

সামনে অস্তিত্ব রক্ষার লড়াই”যেকোনো মূল্যে সমাবেশ সফল করতে হবে: ফখরুল।

বাদ পড়ছেন সাব্বির, ওপেনিংয়ে ফিরবে লিটন

প্রকাশের সময় : ০৯:২১:০৪ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২

শেষ তিন বছর যাবত রান খরায় ভুগতে থাকা সাব্বির রহমানকে এশিয়া কাপে ফেরানো হয় জাতীয় দলে। টপ অর্ডারের ব্যর্থতার কারনেই মূলত দলে জায়গা পায় এই হার্ড হিটার। শুধু তাই নয়, খেলার সুযোগ পেয়েছিলেন ওপেনিংয়ে। কিন্তু ব্যাট হাতে প্রতিবারই চূড়ান্ত ব্যর্থ হচ্ছেন এই ক্রিকেটার। একের পর এক দলকে বাজে পারফরম্যান্স উপহার দেওয়ায় এবার তার উপর আস্থা হারিয়েছেন বাংলাদেশ দলের নতুন কোচ শ্রীধরন শ্রীরাম। তাই হয়তো বিশ্বকাপের আগে আসন্ন ত্রিদেশীয় সিরিজেই বেঞ্চে বসে থাকতে হতে পারে এই ক্রিকেটারকে।

টানা তিন ম্যাচে ওপেনিং করতে নেমে সাব্বির করেছেন ৫, ০ ও ১২ রান। তাই সাব্বিরে মোহভঙ্গ বিসিবির নির্বাচকদেরও। ৩০ বছর বয়সী এ ব্যাটারের জন্য একাদশে আর জায়গা খুঁজে পাচ্ছেন না কোচ শ্রীধরন শ্রীরাম। নিউজিল্যান্ডের ত্রিদেশীয় সিরিজে সাব্বিরের জায়গা ঠিক করা হয়েছে রিজার্ভ বেঞ্চে।

২০১৯ সালে জাতীয় দল পর্ব শেষ করে ফেলেছিলেন সাব্বির। গত তিন বছর টেস্ট, ওয়ানডে, টি২০ কোনো সংস্করণেই ছিলেন না তিনি। একের পর এক শৃঙ্খলা ভেঙে নিষেধাজ্ঞায় পড়েছিলেন। ঘরোয়া লিগে নজর কাড়ার মতো পারফরম্যান্সও ছিল না।

তবুও জাতীয় নির্বাচক প্যানেল মুগ্ধ ছিলেন সাব্বিরে। বাংলাদেশ ‘এ’ দলের ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে ৫০ ওভারের ম্যাচে একটি হাফ সেঞ্চুরি (৬২ রান) করেই সুযোগ পান এশিয়া কাপ দলে। এশিয়া কাপে আফগানিস্তানের বিপক্ষে নিয়মিত দুই ওপেনার এনামুল হক বিজয় ও নাঈম শেখের ব্যর্থতার সুযোগে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে মেকশিফট ওপেনার হিসেবে সাব্বিরকে খেলানো হয় মিরাজের সঙ্গে। মিরাজ তিন ম্যাচের দুই ইনিংসে রান করলেও সাব্বির প্রমাণ করে দেন জাতীয় দলের মানে আর নেই তিনি।

মিরাজ-সাব্বিরকে টানা তিন ম্যাচে সুযোগ দিয়ে দেখতে চেয়েছিলেন কোচ শ্রীরাম। আরব আমিরাতের বিপক্ষে সিরিজ নির্ধারণী দ্বিতীয় ম্যাচে পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষ হয়ে গেছে গতকালই। নিউজিল্যান্ডে সাব্বিরের জায়গায় খেলবেন নাজমুল হোসেন শান্ত। কিন্তু ওপেনিংয়ে ফিরিয়ে আনা হতে পারে লিটন দাসকে। সেই সাথে ওপেনিংয়ে মিরাজ তাকবে কিনা, সে সিদ্ধান্ত নিতে অধিনায়ক সাকিব আল হাসানের জন্য অপেক্ষা করতে হবে কোচকে।