ঢাকা ০৮:৪২ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর ২০২২, ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

কালিগঞ্জের কৃষ্ণনগরে বাজার কমিটির নির্বাচন সম্পন্ন

সকল জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটিয়ে দীর্ঘ ১৬ বছর পর ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনায় অবাধ-সুষ্ঠ ও নিরপেক্ষতা এবং ভোটারদের স্বতঃপূর্ত অংশ গ্রহনের মধ্যদিয়ে কালিগঞ্জ উপজেলার বৃহৎ ও ঐতিহ্যবাহী কৃষ্ণনগর বাজার কমিটির নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে।

 

সোমবার (২৬ সেপ্টেম্বর) সকাল ৯ টা থেকে বিকাল ৪ টা পর্যন্ত বিরতিহীন ভাবে কৃষ্ণনগর ইউনিয়ন পরিষদ হল রুমে ভোট গ্রহণ চলে।

 

নির্বাচনে পদাধিকারবলে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় ইউপির চেয়ারম্যান মোছাঃ সাফিয়া পারভীন সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন এবং সাংগঠনিক সম্পাদক ও কার্যনির্বাহী সদস্য পদে একের অধিক প্রার্থী না হওয়ায় রামপ্রসাদ হালদার রাজু ও মোঃ আজিজুল ইসলাম বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন। তাছাড়াও সাধারণ সম্পাদকসহ ৩ টি পদে মোট ৯ জন প্রার্থী প্রতিযোগিতা করেন।

 

প্রিজাইডিং অফিসার শিক্ষক দেবদাস কুমারের ঘোষিত ফলাফলে বাজার ব্যবসায়ীদের ৪৭৫ ভোটের মধ্যে ৪৩০ জন ভোট তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করেন। সহ-সভাপতি পদে ২ জন প্রার্থীর মধ্যে মোঃ আয়ুব হোসেন (চশমা) ২৩০ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন এবং তার প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী মোঃ আব্দুর রাজ্জাক (গোলাপ ফুল) ১৯০ ভোট পায়।

 

সাধারণ সম্পাদক পদে ৪ জন প্রার্থীর মধ্যে মোঃ নুর হোসেন (মাছ) ১৬৪ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছে এবং তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী মোঃ মিজানুর রহমান (মোটরসাইকেল) ১৫৪ ভোট পায় এবং অপর ২ জন প্রার্থী মোঃ শাহাজান কবির সানু (আনারস) ৫৬ ভোট, মোঃ মনিরুল ইসলাম (ছাতা) ৪৯ ভোট পায়।

 

ক্যাশিয়ার পদে ৩ জন প্রার্থীর মধ্যে মাওঃ মোঃ শওকাত হোসেন (টিউবওয়েল) ১৯৯ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। অপর ২ জন প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী মোঃ নুরুজ্জামান রুবেল (তালা) ১৬২ ভোট, মোঃ জামাল হোসেন (ফুটবল) ৬৬ ভোট পায়।

 

নির্বাচনে বিজয়ী এবং পরাজিত প্রার্থী কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে বাজার ব্যবসায়ীদের কল্যাণে কাজ করার অঙ্গিকার ব্যক্ত করেন।

 

নির্বাচনকালীন দায়িত্বে ছিলেন সহকারী প্রিজাইডিং অফিসার ইউনিয়ন স্বাস্থ্য পরিদর্শক এম এম নুরুজ্জামান, সহকারী প্রিজাইডিং অফিসার রাজনগর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ আব্দুস সালাম, মোঃ মিয়ারাজ হোসেন। তাছাড়াও নিরাপত্তার দায়িত্বে ছিলেন কালিগঞ্জ থানা পুলিশের একটি চৌকাস দল এবং গ্রাম পুলিশ প্রমুখ।

Tag :
জনপ্রিয়

সংবাদ প্রকাশের জেরে তিন সাংবাদিকসহ ৫জনের নামে চোরাকারবারির মামলা

কালিগঞ্জের কৃষ্ণনগরে বাজার কমিটির নির্বাচন সম্পন্ন

প্রকাশের সময় : ০১:২২:৫৮ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২

সকল জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটিয়ে দীর্ঘ ১৬ বছর পর ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনায় অবাধ-সুষ্ঠ ও নিরপেক্ষতা এবং ভোটারদের স্বতঃপূর্ত অংশ গ্রহনের মধ্যদিয়ে কালিগঞ্জ উপজেলার বৃহৎ ও ঐতিহ্যবাহী কৃষ্ণনগর বাজার কমিটির নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে।

 

সোমবার (২৬ সেপ্টেম্বর) সকাল ৯ টা থেকে বিকাল ৪ টা পর্যন্ত বিরতিহীন ভাবে কৃষ্ণনগর ইউনিয়ন পরিষদ হল রুমে ভোট গ্রহণ চলে।

 

নির্বাচনে পদাধিকারবলে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় ইউপির চেয়ারম্যান মোছাঃ সাফিয়া পারভীন সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন এবং সাংগঠনিক সম্পাদক ও কার্যনির্বাহী সদস্য পদে একের অধিক প্রার্থী না হওয়ায় রামপ্রসাদ হালদার রাজু ও মোঃ আজিজুল ইসলাম বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন। তাছাড়াও সাধারণ সম্পাদকসহ ৩ টি পদে মোট ৯ জন প্রার্থী প্রতিযোগিতা করেন।

 

প্রিজাইডিং অফিসার শিক্ষক দেবদাস কুমারের ঘোষিত ফলাফলে বাজার ব্যবসায়ীদের ৪৭৫ ভোটের মধ্যে ৪৩০ জন ভোট তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করেন। সহ-সভাপতি পদে ২ জন প্রার্থীর মধ্যে মোঃ আয়ুব হোসেন (চশমা) ২৩০ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন এবং তার প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী মোঃ আব্দুর রাজ্জাক (গোলাপ ফুল) ১৯০ ভোট পায়।

 

সাধারণ সম্পাদক পদে ৪ জন প্রার্থীর মধ্যে মোঃ নুর হোসেন (মাছ) ১৬৪ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছে এবং তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী মোঃ মিজানুর রহমান (মোটরসাইকেল) ১৫৪ ভোট পায় এবং অপর ২ জন প্রার্থী মোঃ শাহাজান কবির সানু (আনারস) ৫৬ ভোট, মোঃ মনিরুল ইসলাম (ছাতা) ৪৯ ভোট পায়।

 

ক্যাশিয়ার পদে ৩ জন প্রার্থীর মধ্যে মাওঃ মোঃ শওকাত হোসেন (টিউবওয়েল) ১৯৯ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। অপর ২ জন প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী মোঃ নুরুজ্জামান রুবেল (তালা) ১৬২ ভোট, মোঃ জামাল হোসেন (ফুটবল) ৬৬ ভোট পায়।

 

নির্বাচনে বিজয়ী এবং পরাজিত প্রার্থী কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে বাজার ব্যবসায়ীদের কল্যাণে কাজ করার অঙ্গিকার ব্যক্ত করেন।

 

নির্বাচনকালীন দায়িত্বে ছিলেন সহকারী প্রিজাইডিং অফিসার ইউনিয়ন স্বাস্থ্য পরিদর্শক এম এম নুরুজ্জামান, সহকারী প্রিজাইডিং অফিসার রাজনগর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ আব্দুস সালাম, মোঃ মিয়ারাজ হোসেন। তাছাড়াও নিরাপত্তার দায়িত্বে ছিলেন কালিগঞ্জ থানা পুলিশের একটি চৌকাস দল এবং গ্রাম পুলিশ প্রমুখ।