ঢাকা ১১:৫০ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২২, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

বিস্মিত অপু বিশ্বাস

আনুষ্ঠানিক যাত্রা শুরু হলো বাংলাদেশের চলচ্চিত্রের নন্দিত নায়িকা অপু বিশ্বাস প্রযোজিত প্রথম চলচ্চিত্র (সরকারি অনুদানে নির্মিত) ‘লালশাড়ি’র। তানভীর আহমেদ সিডনীর গল্পে আগামী নভেম্বর থেকে এই সিনেমার শুটিং শুরু হবে বলে জানিয়েছেন অপু বিশ্বাস এবং এই সিনেমার পরিচালক ‘বন্ধন বিশ্বাস’।

যেহেতু ঢাকার বাইরে সিনেমাটির শুটিং হবে, তাই সেখানে কোনো মহরত না করতে পারার কারণে গত ২৪ সেপ্টেম্বর রাজধানীর বনানীর একটি অভিজাত রেস্তোরাঁয় ‘লালশাড়ি’র মহরত অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

এই সিনেমার সাথে একজন ক্রিয়েটিভ ডিজাইনার এবং কস্টিউম ডিজাইনার হিসেবে সম্পৃক্ত আছেন বিশ্বরঙ-এর কর্ণধার বিপ্লব সাহা। সিনেমাটিতে বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করবেন শহীদুজ্জামান সেলিম, সাইমন সাদিক, দোয়েলসহ আরও অনেকে।

‘অপু-জয় প্রোডাকশন’ প্রযোজিত সরকারি অনুদানে নির্মিতব্য এই সিনেমার মহরতে বলা যায় বাংলাদেশের প্রায় সব প্রিন্ট, ইলেকট্রনিক ও অনলাইন মিডিয়ার সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠান যদিওবা সন্ধ্যা ৭টায় শুরু হবার কথা ছিল, কিন্তু রাজধানীর যানজটের কারণে ৩০ মিনিট পরে মহরত অনুষ্ঠান শুরু হয়। অনুষ্ঠানে আগত অতিথিদের মধ্যে বিশেষত যাদের নাম উল্লেখ করতে হয়, তারা হলেন পরিচালক সমিতির সভাপতি সোহানুর রহমান সোহান, পরিচালত হাবিবুল ইসলাম হাবিব, গাজী মাহবুব, মুশফিকুর রহমান গুলজার, লালশাড়ি’র সংগীত পরিচালক ইমন সাহা, চিত্রনায়িকা নিপুণসহ আরও অনেকে। জীবনের প্রথম প্রযোজিত সিনেমার মহরতে গণমাধ্যমের সাংবাদিকদের বিপুল অংশগ্রহণ অপু বিশ্বাসকে বিস্মিত করেছে।

অপু বিশ্বাস বলেন, ‘আমি শুরুতেই রাষ্ট্রের প্রতি আন্তরিক কৃতজ্ঞতা জানাই, কারণ সরকারি অনুদান দেয়া হয়েছে বলেই লালশাড়ি সিনেমাটি আমি প্রযোজনা করতে সাহসী হই। সিনেমার মহরতে দেশের বিভিন্ন গণমাধ্যমের বিপুল সাংবাদিকের উপস্থিতি আমাকে সত্যিই বিস্মিত করেছে, আনন্দিত করেছে।

সবাই যে আমাকে স্নেহ করেন, ভালোবাসেন— তার দৃষ্টান্ত ছিল আমার লালশাড়ির মহরত অনুষ্ঠানটি। আমি ভীষণ আবেগী হয়ে উঠেছিলাম আমার বাবা-মায়ের ছবির দিকে তাকিয়ে। সবার দোয়া আর আশীর্বাদে আমি লালশাড়ির কাজ শুরু করতে যাচ্ছি। আর ইচ্ছে আছে অপু-জয় প্রোডাকশন থেকে নিয়মিত সিনেমা প্রযোজনা করার, বাকিটা ঈশ্বর জানেন।

এদিকে কিছুদিন পরই অপু বিশ্বাস অভিনীত ‘ঈশা খাঁ’ সিনেমাটি মুক্তি পেতে যাচ্ছে। কলকাতায় অভিনীত অপু বিশ্বাসের প্রথম সিনেমা সুবীর মণ্ডলের ‘আজকের শর্টকাট’। এছাড়াও মুক্তির অপেক্ষায় রয়েছে অপু অভিনীত বন্ধন বিশ্বাস পরিচালিত ‘ছায়াবৃক্ষ’ ও সোলায়মান হোসেন লেবু পরিচালিত ‘প্রেম প্রীতি বন্ধন’।

Tag :
জনপ্রিয়

ছেলের হত্যাকারীর মৃত্যুদণ্ড নিজ হাতে কার্যকর করলেন বাবা

বিস্মিত অপু বিশ্বাস

প্রকাশের সময় : ০৭:৫৭:৪১ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২

আনুষ্ঠানিক যাত্রা শুরু হলো বাংলাদেশের চলচ্চিত্রের নন্দিত নায়িকা অপু বিশ্বাস প্রযোজিত প্রথম চলচ্চিত্র (সরকারি অনুদানে নির্মিত) ‘লালশাড়ি’র। তানভীর আহমেদ সিডনীর গল্পে আগামী নভেম্বর থেকে এই সিনেমার শুটিং শুরু হবে বলে জানিয়েছেন অপু বিশ্বাস এবং এই সিনেমার পরিচালক ‘বন্ধন বিশ্বাস’।

যেহেতু ঢাকার বাইরে সিনেমাটির শুটিং হবে, তাই সেখানে কোনো মহরত না করতে পারার কারণে গত ২৪ সেপ্টেম্বর রাজধানীর বনানীর একটি অভিজাত রেস্তোরাঁয় ‘লালশাড়ি’র মহরত অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

এই সিনেমার সাথে একজন ক্রিয়েটিভ ডিজাইনার এবং কস্টিউম ডিজাইনার হিসেবে সম্পৃক্ত আছেন বিশ্বরঙ-এর কর্ণধার বিপ্লব সাহা। সিনেমাটিতে বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করবেন শহীদুজ্জামান সেলিম, সাইমন সাদিক, দোয়েলসহ আরও অনেকে।

‘অপু-জয় প্রোডাকশন’ প্রযোজিত সরকারি অনুদানে নির্মিতব্য এই সিনেমার মহরতে বলা যায় বাংলাদেশের প্রায় সব প্রিন্ট, ইলেকট্রনিক ও অনলাইন মিডিয়ার সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠান যদিওবা সন্ধ্যা ৭টায় শুরু হবার কথা ছিল, কিন্তু রাজধানীর যানজটের কারণে ৩০ মিনিট পরে মহরত অনুষ্ঠান শুরু হয়। অনুষ্ঠানে আগত অতিথিদের মধ্যে বিশেষত যাদের নাম উল্লেখ করতে হয়, তারা হলেন পরিচালক সমিতির সভাপতি সোহানুর রহমান সোহান, পরিচালত হাবিবুল ইসলাম হাবিব, গাজী মাহবুব, মুশফিকুর রহমান গুলজার, লালশাড়ি’র সংগীত পরিচালক ইমন সাহা, চিত্রনায়িকা নিপুণসহ আরও অনেকে। জীবনের প্রথম প্রযোজিত সিনেমার মহরতে গণমাধ্যমের সাংবাদিকদের বিপুল অংশগ্রহণ অপু বিশ্বাসকে বিস্মিত করেছে।

অপু বিশ্বাস বলেন, ‘আমি শুরুতেই রাষ্ট্রের প্রতি আন্তরিক কৃতজ্ঞতা জানাই, কারণ সরকারি অনুদান দেয়া হয়েছে বলেই লালশাড়ি সিনেমাটি আমি প্রযোজনা করতে সাহসী হই। সিনেমার মহরতে দেশের বিভিন্ন গণমাধ্যমের বিপুল সাংবাদিকের উপস্থিতি আমাকে সত্যিই বিস্মিত করেছে, আনন্দিত করেছে।

সবাই যে আমাকে স্নেহ করেন, ভালোবাসেন— তার দৃষ্টান্ত ছিল আমার লালশাড়ির মহরত অনুষ্ঠানটি। আমি ভীষণ আবেগী হয়ে উঠেছিলাম আমার বাবা-মায়ের ছবির দিকে তাকিয়ে। সবার দোয়া আর আশীর্বাদে আমি লালশাড়ির কাজ শুরু করতে যাচ্ছি। আর ইচ্ছে আছে অপু-জয় প্রোডাকশন থেকে নিয়মিত সিনেমা প্রযোজনা করার, বাকিটা ঈশ্বর জানেন।

এদিকে কিছুদিন পরই অপু বিশ্বাস অভিনীত ‘ঈশা খাঁ’ সিনেমাটি মুক্তি পেতে যাচ্ছে। কলকাতায় অভিনীত অপু বিশ্বাসের প্রথম সিনেমা সুবীর মণ্ডলের ‘আজকের শর্টকাট’। এছাড়াও মুক্তির অপেক্ষায় রয়েছে অপু অভিনীত বন্ধন বিশ্বাস পরিচালিত ‘ছায়াবৃক্ষ’ ও সোলায়মান হোসেন লেবু পরিচালিত ‘প্রেম প্রীতি বন্ধন’।