ঢাকা ০৯:৩৬ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর ২০২২, ১৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

রাজধানীতে সকাল থেকেই তীব্র যানজট

সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবস রোববার। সকাল থেকে কর্মচঞ্চল হয়ে উঠেছে রাজধানী ঢাকা। সড়কে অফিসগামীদের চলাচল বেড়েছে। এদিকে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে যেতে বেড়েছে শিক্ষার্থীদের চলাচল।

নগরীতে গণপরিবহন, ব্যক্তিগত যানবাহনের পাশাপাশি সিএনজি অটোরিকশা, মোটরসাইকেলের চলাচলও বেড়েছে। এদিকে সড়কে বিভিন্ন পয়েন্টে যাত্রী তোলার জন্য গণপরিবহনগুলো সড়কের অনেকটা জায়গা জুড়ে দাঁড়িয়ে যাচ্ছে। যাত্রী-পথচারীদের তাড়া বেড়েছে। সব মিলিয়ে রাজধানীর সড়কগুলোতে তীব্র যানজট।

রোববার (১১ সেপ্টেম্বর) সকালে রাজধানীর ঘুরে সড়কগুলো এমন চিত্র দেখা গেছে।

রাজধানীর প্রবেশদার আব্দুল্লাহপুর মোড়ে রয়েছে গণপরিবহণের তীব্র চাপ। এই মোড়ে সারি সারি বাস সড়কের পাশে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা গেছে। সেই সঙ্গে আব্দুল্লাপুর মোড়ের শেষ প্রান্তে সড়কের পাশে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা গেছে দূরপাল্লার গণপরিবহনগুলোকে।
এদিকে মোড়টিতে বাস ট্রাক ইউটার্ন নিচ্ছে। তিনমুখী এই সংযোগ স্থানে যাত্রী পথচারী ও সব ধরণের পরিবহনের চাপ অনেক বেশি। যে কারণে গাজীপুরের স্টেশন রোড থেকে টঙ্গী হয়ে আব্দুল্লাহপুর মোড় পর্যন্ত যানজটের সৃষ্টি হয়েছে।
অপরদিকে, রাজধানীর হাউজবিল্ডিং, আজমপুর, জসিমউদ্দীন মোড় হয়ে বিমানবন্দর পর্যন্ত সড়কে রয়েছে যানজট। খিলক্ষেত থেকে কুড়িল, নতুনবাজার, বাড্ডা হয়ে রামপুরা-মালিবাগ, খিলক্ষেত থেকে রেডিসনের সামনে দিয়ে বনানী-কাকলী, মহাখালী হয়ে সাতরাস্তা, মগবাজার হয়ে রমনা, গুলশান-১ ও ২ নম্বর সড়কে তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়েছে। এসব এলাকায় বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সামনেও যানবাহন ও পথচারীর চাপ রয়েছে।

রাশেদ রাব্বি নামে এক পধচারী বলেন, যানজট প্রতিদিনের সমস্যা। রাজধানীতে থাকতে হলে যানজটকে সঙ্গে নিয়েই থাকতে হবে। কারণ যে পরিমাণে গাড়ি সড়কে বেড়েছে তার যাত্রীদের তুলনায় অনেক বেশি এবং এসব গাড়ি একসঙ্গে চলাচলে পর্যাপ্ত সড়ক নেই। যেটুকু আছে সেখানেও সরকারের বিভিন্ন প্রকল্পের কাজ চলছে বছরের পর বছর।

তিনি বলেন, এখনও রাজধানীর বিভিন্ন সড়কের পাশে ব্যক্তিগত গাড়ি পার্কিং করে রাখা হচ্ছে। অথচ অধিকাংশ ভবনের ভেতরে সঠিক পার্কিংয়ের ব্যবস্থা নেই। এতেও যানজটের সৃষ্টি হচ্ছে।

পুলিশের ট্রাফিক সদস্যরা বলছে, যানবাহন চালকেরা সঠিক নিয়ম মেনে চলাচল করে না। এতে সড়কে নানা ধরনের জটিলতার সৃষ্টি হয়।

তাছাড়া সড়কে চলাচলে যাত্রী-পথচারী ও যানবাহনের চালক কেউই আইন মেনে চলে না। তাই যানজট সমস্যা কমছে না।

Tag :
জনপ্রিয়

আগামী ১০ ডিসেম্বর সোহরাওয়ার্দীতে নয়, নয়াপল্টনেই সমাবেশে অনড় বিএনপি।

রাজধানীতে সকাল থেকেই তীব্র যানজট

প্রকাশের সময় : ০৯:৪৮:৪৯ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ১১ সেপ্টেম্বর ২০২২

সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবস রোববার। সকাল থেকে কর্মচঞ্চল হয়ে উঠেছে রাজধানী ঢাকা। সড়কে অফিসগামীদের চলাচল বেড়েছে। এদিকে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে যেতে বেড়েছে শিক্ষার্থীদের চলাচল।

নগরীতে গণপরিবহন, ব্যক্তিগত যানবাহনের পাশাপাশি সিএনজি অটোরিকশা, মোটরসাইকেলের চলাচলও বেড়েছে। এদিকে সড়কে বিভিন্ন পয়েন্টে যাত্রী তোলার জন্য গণপরিবহনগুলো সড়কের অনেকটা জায়গা জুড়ে দাঁড়িয়ে যাচ্ছে। যাত্রী-পথচারীদের তাড়া বেড়েছে। সব মিলিয়ে রাজধানীর সড়কগুলোতে তীব্র যানজট।

রোববার (১১ সেপ্টেম্বর) সকালে রাজধানীর ঘুরে সড়কগুলো এমন চিত্র দেখা গেছে।

রাজধানীর প্রবেশদার আব্দুল্লাহপুর মোড়ে রয়েছে গণপরিবহণের তীব্র চাপ। এই মোড়ে সারি সারি বাস সড়কের পাশে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা গেছে। সেই সঙ্গে আব্দুল্লাপুর মোড়ের শেষ প্রান্তে সড়কের পাশে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা গেছে দূরপাল্লার গণপরিবহনগুলোকে।
এদিকে মোড়টিতে বাস ট্রাক ইউটার্ন নিচ্ছে। তিনমুখী এই সংযোগ স্থানে যাত্রী পথচারী ও সব ধরণের পরিবহনের চাপ অনেক বেশি। যে কারণে গাজীপুরের স্টেশন রোড থেকে টঙ্গী হয়ে আব্দুল্লাহপুর মোড় পর্যন্ত যানজটের সৃষ্টি হয়েছে।
অপরদিকে, রাজধানীর হাউজবিল্ডিং, আজমপুর, জসিমউদ্দীন মোড় হয়ে বিমানবন্দর পর্যন্ত সড়কে রয়েছে যানজট। খিলক্ষেত থেকে কুড়িল, নতুনবাজার, বাড্ডা হয়ে রামপুরা-মালিবাগ, খিলক্ষেত থেকে রেডিসনের সামনে দিয়ে বনানী-কাকলী, মহাখালী হয়ে সাতরাস্তা, মগবাজার হয়ে রমনা, গুলশান-১ ও ২ নম্বর সড়কে তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়েছে। এসব এলাকায় বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সামনেও যানবাহন ও পথচারীর চাপ রয়েছে।

রাশেদ রাব্বি নামে এক পধচারী বলেন, যানজট প্রতিদিনের সমস্যা। রাজধানীতে থাকতে হলে যানজটকে সঙ্গে নিয়েই থাকতে হবে। কারণ যে পরিমাণে গাড়ি সড়কে বেড়েছে তার যাত্রীদের তুলনায় অনেক বেশি এবং এসব গাড়ি একসঙ্গে চলাচলে পর্যাপ্ত সড়ক নেই। যেটুকু আছে সেখানেও সরকারের বিভিন্ন প্রকল্পের কাজ চলছে বছরের পর বছর।

তিনি বলেন, এখনও রাজধানীর বিভিন্ন সড়কের পাশে ব্যক্তিগত গাড়ি পার্কিং করে রাখা হচ্ছে। অথচ অধিকাংশ ভবনের ভেতরে সঠিক পার্কিংয়ের ব্যবস্থা নেই। এতেও যানজটের সৃষ্টি হচ্ছে।

পুলিশের ট্রাফিক সদস্যরা বলছে, যানবাহন চালকেরা সঠিক নিয়ম মেনে চলাচল করে না। এতে সড়কে নানা ধরনের জটিলতার সৃষ্টি হয়।

তাছাড়া সড়কে চলাচলে যাত্রী-পথচারী ও যানবাহনের চালক কেউই আইন মেনে চলে না। তাই যানজট সমস্যা কমছে না।