ঢাকা ০২:০৩ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২২, ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

ইন্দোনেশিয়ায় দফায় দফায় ভূমিকম্প

ইন্দোনেশিয়ার পশ্চিম পাপুয়া প্রদেশে দফায় দফায় ভূমিকম্প অনুভূত হয়েছে। শনিবার সকালে সর্বোচ্চ ৬. ১ মাত্রার ভূমিকম্প অনুভূত হয়। এর কিছুক্ষণ পরই ৫ দশমিক ৮ মাত্রার একটি ভূমিকম্প হয়।

আরব নিউজের এক প্রতিবেদনে বলা হয়ছে, পশ্চিম পাপুয়ার সেন্ট্রাল মামবেরামো জেলায় শুক্রবার মধ্যরাতের পর থেকে শনিবার সকাল পর্যন্ত চার বার ভূমিকম্প হয়েছে। তবে এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত কোনো হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি।

মার্কিন ভূতাত্ত্বিক জরিপ সংস্থা (ইউএসজিএস) বলছে, ভূমিকম্পের উৎপত্তিস্থল ছিলো ভূপৃষ্ঠের ১৬ কিলেমিটার গভীরে।

বার বার ভূমিকম্প হলেও কোনো সুনামির সতর্কতা জারি করেনি দেশটির আবহাওয়া, জলবায়ু ও ভূতত্ত্ব দপ্তরের ভূমিকম্প ও সুনামি বিভাগ।

এর আগে ২০২১ সালের জানুয়ারি মাসে ৬ দশমিক ২ মাত্রার ভূমিকম্পে দ্বীপরাষ্ট্রটিতে শতাধিক মানুষ মারা যান। ঘর-বাড়ি হারান হাজার মানুষ। এছাড়া, ২০০৪ সালে ইন্দোনেশিয়ার সুমাত্রা দ্বীপের উপকূলে সমুদ্রতলে ভূমিকম্প আঘাত হানে। এর ফলে সৃষ্ট সুনামিতে ভারত মহাসাগরের পাশে থাকা দেশগুলোতে ২ লাখ ২০ হাজার মানুষ নিহত হন। এর মধ্যে ইন্দোনেশিয়ার ছিল ১ লাখ ৬৮ হাজার মানুষ।

Tag :
জনপ্রিয়

সাটুরিয়ায় নিয়োগ বাতিলের দাবীতে মানববন্ধন

ইন্দোনেশিয়ায় দফায় দফায় ভূমিকম্প

প্রকাশের সময় : ০৯:০১:২২ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১০ সেপ্টেম্বর ২০২২

ইন্দোনেশিয়ার পশ্চিম পাপুয়া প্রদেশে দফায় দফায় ভূমিকম্প অনুভূত হয়েছে। শনিবার সকালে সর্বোচ্চ ৬. ১ মাত্রার ভূমিকম্প অনুভূত হয়। এর কিছুক্ষণ পরই ৫ দশমিক ৮ মাত্রার একটি ভূমিকম্প হয়।

আরব নিউজের এক প্রতিবেদনে বলা হয়ছে, পশ্চিম পাপুয়ার সেন্ট্রাল মামবেরামো জেলায় শুক্রবার মধ্যরাতের পর থেকে শনিবার সকাল পর্যন্ত চার বার ভূমিকম্প হয়েছে। তবে এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত কোনো হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি।

মার্কিন ভূতাত্ত্বিক জরিপ সংস্থা (ইউএসজিএস) বলছে, ভূমিকম্পের উৎপত্তিস্থল ছিলো ভূপৃষ্ঠের ১৬ কিলেমিটার গভীরে।

বার বার ভূমিকম্প হলেও কোনো সুনামির সতর্কতা জারি করেনি দেশটির আবহাওয়া, জলবায়ু ও ভূতত্ত্ব দপ্তরের ভূমিকম্প ও সুনামি বিভাগ।

এর আগে ২০২১ সালের জানুয়ারি মাসে ৬ দশমিক ২ মাত্রার ভূমিকম্পে দ্বীপরাষ্ট্রটিতে শতাধিক মানুষ মারা যান। ঘর-বাড়ি হারান হাজার মানুষ। এছাড়া, ২০০৪ সালে ইন্দোনেশিয়ার সুমাত্রা দ্বীপের উপকূলে সমুদ্রতলে ভূমিকম্প আঘাত হানে। এর ফলে সৃষ্ট সুনামিতে ভারত মহাসাগরের পাশে থাকা দেশগুলোতে ২ লাখ ২০ হাজার মানুষ নিহত হন। এর মধ্যে ইন্দোনেশিয়ার ছিল ১ লাখ ৬৮ হাজার মানুষ।