ঢাকা ০৫:৩১ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ০১ অক্টোবর ২০২২, ১৫ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

মাদক মামলায় পুলিশের এএসআই মাহবুবুলসহ তিনজন রিমান্ডে

পথচারীর পকেটে মাদক দিয়ে ফাঁসানোর ঘটনায় গ্রেফতার পল্লবী থানার এএসআই মাহবুবুল আলমসহ তিনজনের দুইদিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

বৃহস্পতিবার ঢাকা মহানগর হাকিম মোহাম্মদ শেখ সাদীর আদালত এ রিমান্ড মঞ্জুর করেন। রিমান্ডে যাওয়া অন্য আসামিরা হলেন-মো. রুবেল ও মো. সোহেল রানা।

এদিন তিন আসামিকে আদালতে হাজির করা হয়। এরপর মামলার সুষ্ঠু তদন্তের স্বার্থে তাদের সাত দিন করে রিমান্ডে নিতে আবেদন করেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ক্যান্টনমেন্ট থানার উপপরিদর্শক মো.আনোয়ার হোসেন। এসময় আসামিপক্ষে তাদের আইনজীবী রিমান্ড বাতিল ও জামিন চেয়ে আবেদন করেন। অন্যদিকে রাষ্ট্রপক্ষ জামিনের বিরোধিতা করেন। উভয় পক্ষের শুনানি শেষে আদালত তাদের জামিন নামঞ্জুর করে দুইদিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

মামলার সূত্রে জানা যায়, আসামি এএসআই মাহবুবুল আলমসহ একজন সোর্সের কাছ থেকে ইয়াবার প্যাকেট নিয়ে পথচারী খলিলুর রহমানের পকেটে ঢুকিয়ে দেয়। এ ঘটনায় পথচারীর বিরুদ্ধে পল্লবী থানায় মাদক মামলা দেয় পুলিশ। পরবর্তীতে পথচারীর পকেটে মাদক ঢুকিয়ে দেওয়ার ভিডিও বেসরকারি টেলিভিশনে প্রচারিত হয়। এরপর তাকে এ মামলায় চূড়ান্ত প্রতিবেদন দেয় পুলিশ। একইসঙ্গে পল্লবী থানার উপপরিদর্শক খালিদ হাসান তন্ময় বাদী হয়ে রাজধানীর ক্যান্টনমেন্ট থানায় এএসআই মাহবুবুল আলমসহ তিনজনের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দায়ের করেন।

Tag :
জনপ্রিয়

হোসেনপুর বাজার সনাতন ধর্মাবলম্বী ব্যাবসায়িকদের উদ্যোগে বস্ত্র বিতরণ

মাদক মামলায় পুলিশের এএসআই মাহবুবুলসহ তিনজন রিমান্ডে

প্রকাশের সময় : ০৮:৫২:০৫ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৮ সেপ্টেম্বর ২০২২

পথচারীর পকেটে মাদক দিয়ে ফাঁসানোর ঘটনায় গ্রেফতার পল্লবী থানার এএসআই মাহবুবুল আলমসহ তিনজনের দুইদিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

বৃহস্পতিবার ঢাকা মহানগর হাকিম মোহাম্মদ শেখ সাদীর আদালত এ রিমান্ড মঞ্জুর করেন। রিমান্ডে যাওয়া অন্য আসামিরা হলেন-মো. রুবেল ও মো. সোহেল রানা।

এদিন তিন আসামিকে আদালতে হাজির করা হয়। এরপর মামলার সুষ্ঠু তদন্তের স্বার্থে তাদের সাত দিন করে রিমান্ডে নিতে আবেদন করেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ক্যান্টনমেন্ট থানার উপপরিদর্শক মো.আনোয়ার হোসেন। এসময় আসামিপক্ষে তাদের আইনজীবী রিমান্ড বাতিল ও জামিন চেয়ে আবেদন করেন। অন্যদিকে রাষ্ট্রপক্ষ জামিনের বিরোধিতা করেন। উভয় পক্ষের শুনানি শেষে আদালত তাদের জামিন নামঞ্জুর করে দুইদিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

মামলার সূত্রে জানা যায়, আসামি এএসআই মাহবুবুল আলমসহ একজন সোর্সের কাছ থেকে ইয়াবার প্যাকেট নিয়ে পথচারী খলিলুর রহমানের পকেটে ঢুকিয়ে দেয়। এ ঘটনায় পথচারীর বিরুদ্ধে পল্লবী থানায় মাদক মামলা দেয় পুলিশ। পরবর্তীতে পথচারীর পকেটে মাদক ঢুকিয়ে দেওয়ার ভিডিও বেসরকারি টেলিভিশনে প্রচারিত হয়। এরপর তাকে এ মামলায় চূড়ান্ত প্রতিবেদন দেয় পুলিশ। একইসঙ্গে পল্লবী থানার উপপরিদর্শক খালিদ হাসান তন্ময় বাদী হয়ে রাজধানীর ক্যান্টনমেন্ট থানায় এএসআই মাহবুবুল আলমসহ তিনজনের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দায়ের করেন।