রেজি. নং- ১৯৬, ডিএ নং- ৬৪৩৪

রবিবার ১৫ ডিসেম্বর ২০১৯, ১লা পৌষ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

০১:০৬ পূর্বাহ্ণ

শিরোনাম
◈ গাইবান্ধার শহীদ মুক্তিযোদ্ধা স্মৃতি ফলক পৌরসভার উদ্যোগে নতুন সাজে ◈ রাঙ্গুনিয়ায় গোচরা বাজারে ইসলামী ব্যাংকের আউটলেট শাখা উদ্বোধন। ◈ নবীনগরে মুক্ত দিবস পালিত ◈ অভিভাবক প্রতিনিধি নির্বাচনে হাওয়া বইছে গোবিন্দাসী উচ্চ বিদ্যালয়ে ◈ শিবপুরে শহীদ বুদ্ধিজীবি দিবস -২০১৯ উপলক্ষে প্রদীপ প্রজ্জ্বলন ◈ ছাতকে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবসে আলোচনা সভা ◈ রাজশাহী’র কয়েকটি পরিবেশবাদী সংগঠনের সদস্যদের আলতাদিঘী জাতীয় উদ্যান পরিদর্শন ◈ বিজয়ের মাসে কালিহাতীতে জাতীয় পতাকা বিক্রির ধুম ◈ তিতাসে সেচ্ছাসেবী সংগঠনের উদ্যোগে শুরু হয়েছে ৩দিন ব্যাপী ‘ক্লিন তিতাস’ ক্যাম্পেইন ◈ রুম্পাকে ধর্ষণের আলামত মেলেনি: চিকিৎসক

সৌন্দর্য নয়, টোল পড়া আসলে শারীরিক বিকৃতি!

প্রকাশিত : 04:27 AM, 25 November 2019 Monday ২৭ বার পঠিত

অনলাইন নিউজ ডেক্স :
alokitosakal

কোনো রোগ বা জন্মগত অঙ্গ বিকৃতি কি কখনো কারো কাছে সুখকর বা সৌন্দর্যের কারণ হতে পারে? হ্যাঁ, পারে। যদি তা হয় গাল ও থুতনির টোল!
বন্ধু মহলে বা বিপরীত লিঙ্গের মানুষের কাছে একজন মানুষের দাম বহুগুণে বাড়িয়ে দেয় এই টোল। যে হাসি দিলে টোল পড়ে তার দাম্ভিকতাও থাকে বেশ। এসবের কারণই হলো গালে টোল পড়লে একজন মানুষকে বেজায় সুন্দর দেখায়। কিন্তু এটা সৌন্দর্যের প্রতীক হিসেবে ধরা হলেও আসলে বিষয়টা একটি শারীরিক বিকৃতির ফল।

এই বিকৃতির কারণেই আসলে গালে টোল পড়ে। মানুষের হাসির জন্য দায়ী যে মাংসপেশি, তার নাম জাইগোম্যাটিক মেজর। এটি মানুষের মুখ কোনাকুনি বা তির্যকভাবে বাঁকা করে হাসতে সাহায্য করে। মানুষের গালের হাড় থেকে মুখের প্রান্ত পর্যন্ত বিস্তৃত হয় এর জন্যই।

আর এই পেশির বিকৃতির ফলেই টোল পড়ে সাধারণত। স্বাভাবিক আকারের থেকে এই পেশির আকার ছোট কিংবা দুই ভাগে বিভাজিত হওয়ার ফলে থুতনিতে বা গালে টোল দেখা যায়। গালের টোলের জন্য হাসার প্রয়োজন পড়লেও থুতনির টোল সবসময়ই দেখা যায়। সচরাচর টোল পড়া মানুষের দুই গালেই টোল দেখা যায়। মাঝে মাঝে এক গালেও দেখা যায়। তবে এটা একেবারেই বিরল।

গবেষণায় দেখা গেছে, টোল বিষয়টা জেনেটিক কারণে হয় তবে অনেকে এর বিরোধিতাও করেন। মা-বাবার কারো টোল থাকলে তাদের সন্তানের টোল থাকার সম্ভাবনা প্রায় ২৫-৫০ শতাংশ। এক্ষেত্রে দুইজনের একজনের টোল সৃষ্টিকারী জিন সন্তানের মধ্যে থাকলেই চলবে। আর মা-বাবার টোল থাকলে সন্তানের টোল থাকার সম্ভাবনা ৫০-১০০ ভাগ! মা-বাবার কারোই এটি না থাকলে সন্তানের টোল থাকার সম্ভাবনা নেই। মুখে অতিরিক্ত চর্বি জমে যাওয়ার কারণেও টোল পড়ে। তবে তা স্থায়ী নয়।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি Alokito Sakal'কে জানাতে ই-মেইল করুন- dailyalokitosakal@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

Alokito Sakal'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।




© ২০১৯ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। Alokito Sakal | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, Design and Developed by- DONET IT