রেজি. নং- ১৯৬, ডিএ নং- ৬৪৩৪

মঙ্গলবার ২৭ অক্টোবর ২০২০, ১২ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

০৮:১১ অপরাহ্ণ

সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছে পেঁয়াজ

প্রকাশিত : ০৬:০৫ AM, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৯ Wednesday ২৩৩ বার পঠিত

আলোকিত সকাল রিপোর্ট :
alokitosakal

বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ে দফায় দফায় বৈঠক, বাণিজ্য সচিবের দাম কমানোর আশ^াস, খোলাবাজারে ৪৫ টাকা দরে টিসিবির পেঁয়াজ বিক্রি এবং পাঁচটি দেশ থেকে আমদানির ঘোষণাÑ কোনো কিছুতেই কাজ হচ্ছে না, দাম কমছে না পেঁয়াজের। উল্টো দাম বাড়তে বাড়তে সেঞ্চুরি এরপর হাঁকিয়েছে পেঁয়াজ। অর্থাৎ খুচরা বাজারে এখন ১ কেজি পেঁয়াজের দাম ১০০ টাকায় ঠেকেছে।

ভারত রফতানিমূল্য বাড়িয়ে প্রতি টনের মূল্য ৮৫২ ডলার করার সঙ্গে সঙ্গে বাংলাদেশের বাজারে পেঁয়াজের দাম বেড়ে যাওয়ার পর তা আর কমার লক্ষণ নেই। নানামুখী উদ্যোগ নিয়ে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে এই নিত্যপণ্যের দাম কমার কথা বলেছিলেন বাণিজ্য সচিব মো. জাফর উদ্দীন। কিন্তু সে ঘোষণার পর চার দিন পেরিয়ে গেলেও বাজারে তার প্রভাব দেখা যায়নি। মঙ্গলবার রাজধানীর বিভিন্ন কাঁচাবাজারে ঘুরে দেখা গেছে, প্রতিকেজি দেশি পেঁয়াজ ১০০ এবং ভারতীয় মোটা পেঁয়াজ ৮৫-৯০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

ট্যারিফ কমিশনের হিসাবে বাংলাদেশে পেঁয়াজের বার্ষিক চাহিদা ২৪ লাখ টন। দেশের উৎপাদনের পর ১০-১১ লাখ টন পেঁয়াজ আমদানি করতে হয়, যার বেশিরভাগই আসে ভারত থেকে। ভারতের পদক্ষেপের কারণে বাজার সামলাতে সরকার খোলাবাজারে ৪৫ টাকা কেজিতে পেঁয়াজ বিক্রি শুরু করে। মিয়ানমার, মিসর, ভারতসহ পাঁচটি দেশ থেকেও পেঁয়াজ আমদানির কথা বলা হয়। সোমবার বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের বৈঠকে বাজারে তদারকি বাড়ানোর কথাও বলা হয়েছিল। কিন্তু বাজারের চিত্র বলছে ভিন্ন কথা।

গতকাল কল্যাণপুর নতুন বাজারের একাধিক দোকানে দেখা গেছে, ভারতীয় পেঁয়াজ ৮০-৮৫ এবং দেশি পেঁয়াজ ১০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। এই বাজারের দোকানের কর্মী বেল্লাল হোসেন জানান, তাদের কাছে চার ধরনের পেঁয়াজ রয়েছে। এর মধ্যে পাবনা অঞ্চলের সবচেয়ে ভালোমানের পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে ১০০ টাকায়। ফরিদপুর অঞ্চলের পেঁয়াজ ৯৫ এবং ভারতীয় ও ক্রস পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে ৮০-৮৫ টাকায়।

কারওয়ান বাজারের পাইকারি বিক্রেতা কবিরুল ইসলাম জানান, পেঁয়াজের দাম কমার কোনো লক্ষণ এখনও দেখছি না। পাইকারি বাজারেই এখনও ফরিদপুরের পেঁয়াজ প্রতিকেজি ৭০-৭৫ এবং পাবনা অঞ্চলের পেঁয়াজ প্রতিকেজি ৭৫-৮০ টাকা করে বিক্রি হচ্ছে। এদিন পুরান ঢাকার শ্যামবাজারের আড়তে দেশি কিংবা ভারতীয় সবধরনের পেঁয়াজের পাইকারি মূল্য প্রতিকেজি ৬৫-৭০ টাকা ছিল বলে জানান আল মক্কা জেনারেল স্টোরের ব্যবস্থাপক ইউনুস হাওলাদার।

অন্যদিকে গত মঙ্গলবার থেকে ঢাকা শহরের পাঁচটি স্থানে প্রতিকেজি ৪৫ টাকা করে খোলাবাজারে পেঁয়াজ বিক্রি করছে সরকারি বিপণন সংস্থা ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি)। চলতি সপ্তাহে ঢাকায় পেঁয়াজ বিক্রির স্থান বৃদ্ধিসহ সারা দেশে খোলাবাজারে পেঁয়াজ বিক্রির উদ্যোগ নেওয়ার কথা থাকলেও তা করতে পারেনি সংস্থাটি।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি Alokito Sakal'কে জানাতে ই-মেইল করুন- dailyalokitosakal@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

Alokito Sakal'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।




© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। Alokito Sakal | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, Design and Developed by- DONET IT