রেজি. নং- ১৯৬, ডিএ নং- ৬৪৩৪

বৃহস্পতিবার ২৮ জানুয়ারি ২০২১, ১৫ই মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

১২:৫৬ পূর্বাহ্ণ

শিরোনাম
◈ রায়পুর বামনী ইউ‌পি নির্বাচন ক‌রে জন‌সেবা কর‌তে চান সাংবা‌দিক দে‌লোয়ার মৃধা ◈ ধামইরহাটে নৌকার বিজয় নিশ্চিতে প্রচারনায় কেন্দ্রীয় যুবলীগ নেতারা ◈ নজিপুরে হাবিব ডিজিটাল প্যানা সাইন এর শুভ উদ্বোধন ◈ লালমোহনে সরকারি খালের মধ্যে করা নির্মানাধীন ভবন ভেঙ্গে দিলেন ইউএনও ; নির্মান সামগ্রী নিলামে বিক্রি ◈ মৌলভীবাজার সম্মিলিত সামাজিক উন্নয়ন পরিষদ কর্তৃক মেয়র ফজলুর রহমানের সাথে মতবিনিময় ◈ বেলাবতে বিস্ফোরক লাইসেন্স ছাড়া যততত্র বিক্রি হচ্ছে এলপিজি সিলিন্ডার গ্যাস ও পেট্রোল ◈ ছাতকে রাষ্ট্রিয় মর্যাদায় মুক্তিযোদ্ধা শাহ মনোহর আলীর দাফন সম্পন্ন ◈ বাগাতিপাড়ায় আধুনিক বীজ উৎপাদনে রোপা আমন ফসলের মাঠ দিবস ◈ অপার সম্ভাবনা রপ্তানি ও শিল্প ব্যবহারযোগ্য আলুর আবাদ বৃদ্ধিতে গুরুত্ব দেয়া হচ্ছে-ডোমারে কৃৃষিমন্ত্রী ◈ গংগাচড়ায় পিপিআর রোগ নির্মূলে বিনামুল্যে টিকা প্রদানের উদ্ধোধন
পীরগাছায় আমন খেতে ইঁদুরের আক্রমণ

লক্ষ্যমাত্রা পূরণ না হওয়ার শঙ্কা

প্রকাশিত : ০৪:৫৯ AM, ৯ অক্টোবর ২০১৯ বুধবার ১৫৪ বার পঠিত

আলোকিত সকাল রিপোর্ট :
alokitosakal

রংপুরের পীরগাছায় আমন খেতে ইঁদুরের আক্রমণে দিশেহারা কৃষক। কীটনাশক ও ফাঁদ পেতেও ইঁদুর ঠেকানো যাচ্ছে না। ফলে আমন ধানের লক্ষ্যমাত্রা পূরণ না হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে।

উপজেলা কৃষি বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, চলতি মৌসুমে উপজেলার ৯টি ইউনিয়নে প্রায় ২০ হাজার ৬৬০ হেক্টর জমিতে আমন আবাদের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়। মৌসুমের শুরুতেই বন্যার কবলে পড়েন কৃষকরা। বন্যায় ৩ হাজার ২০০ জন কৃষক ক্ষতিগ্রস্ত হন। তাদের মধ্যে ১০০ জনকে পাঁচ কেজি করে আমন ধানের বীজ বিতরণ করা হয়। কিন্তু বন্যার কারণে দেরিতে আমন চারা রোপণ করেন তারা।

কান্দি ইউনিয়নের কাবিলাপাড়া গ্রামের কৃষক আব্দুর রাজ্জাক জানান, জমিতে চারা লাগানোর পর ধান গাছ বেড়ে ওঠার সময়ই ইঁদুরের আক্রমণ শুরু হয়েছে। এতে সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছেন বর্গাচাষিরা। স্থানীয়ভাবে লাড্ডু ও কাঁকড়ায় কীটনাশক মিশিয়ে জমিতে দেওয়া হচ্ছে। কিন্তু বৃষ্টির পানি জমে থাকায় ফল মিলছে না।

উপজেলার কৈকুড়ী ইউনিয়নের কৃষক তাজুল ইসলাম জানান, এলাকায় প্রায় ৬০-৭০ ভাগ আমনখেতে ইঁদুরের আক্রমণ দেখা দিয়েছে। ইঁদুর নিধনে উপজেলা কৃষি বিভাগ থেকে কোনো পরামর্শ পাওয়া যাচ্ছে না।

কান্দি ইউনিয়নের দায়িত্বে থাকা উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা আব্দুল জলিল বলেন, ‘ইঁদুর নিধনের জন্য কৃষকদের বিভিন্ন ধরনের বিষ টোপ দেওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।’

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা শামীমুর রহমান বলেন, ‘কৃষি বিভাগের বিরুদ্ধে কৃষকদের অভিযোগ সঠিক নয়। উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তারা ইঁদুর নিধনে কৃষকদের পরামর্শ দিচ্ছেন।’

রংপুর কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক সরওয়ারুল হক বলেন, ‘জমিতে প্রথমে বিষ ছাড়াই টোপ দিতে হবে। পরে বিষ মিশিয়ে টোপ দিলে কার্যকর ফল পাওয়া যাবে।’

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি Alokito Sakal'কে জানাতে ই-মেইল করুন- dailyalokitosakal@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

Alokito Sakal'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।




এই বিভাগের জনপ্রিয়

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। Alokito Sakal | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, Design and Developed by- DONET IT