রেজি. নং- ১৯৬, ডিএ নং- ৬৪৩৪

সোমবার ১২ এপ্রিল ২০২১, ২৯শে চৈত্র, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

০৯:৩৮ পূর্বাহ্ণ

শিরোনাম
◈ করোনার দ্বিতীয় টিকা নিলেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান – মোফাজ্জল হোসেন খান ◈ কাভার্ডভ‌্যান চাপায় না.গ‌ঞ্জ সিআইডির কন‌স্টেবল নিহত ◈ নারায়ণগঞ্জে ভ্রাম্যমাণ গাড়িতে মিলছে দুধ ডিম মাংস ◈ ধামইরহাটে নর্থওয়েষ্ট ক্যাবল নেটওয়ার্কে তালা, ভোগান্তিতে স্যাটেলাইট গ্রাহকরা ◈ ধামইরহাটে ২য় ধাপের করোনা মোকাবিলায় তৎপর প্রশাসন করোনায় আক্রান্ত স্বাস্থ্য প্রশাসক ও মুক্তিযোদ্ধা আইসোলেশনে ◈ দ্বিতীয় ডোজ টিকা নিলেন  গৌরীপুরের গণমাধ্যমকর্মীরা ◈ ইউএনও’র মোবাইল নাম্বার ক্লোন করে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে টাকা দাবি ! ◈ রাজারহাট উপজেলা ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভিল ডিফেন্স এর শুভ উদ্বোধন ◈ শ্রীনগরে বাড়ৈগাঁও-পশ্চিম নওপাড়া সড়কটি এখন মৃত্যুকুপ! ◈ তিতাসে গোমতী নদীর পাড় ও ডিম চরের মাটি যাচ্ছে ইট ভাটায়

রেমিট্যান্সের প্রণোদনার ১৫০০ কোটি টাকা ছাড়

প্রকাশিত : ০৬:৪১ AM, ৩ অক্টোবর ২০১৯ বৃহস্পতিবার ২৮৬ বার পঠিত

আলোকিত সকাল রিপোর্ট :
alokitosakal

প্রবাসী আয়ে প্রণোদনা পাওয়া নিয়ে জটিলতার অবসান হয়েছে। এতে করে এখন থেকে নিয়মিতভাবে রেমিট্যান্সের প্রণোদনা পাবেন প্রবাসীদের সুবিধাভোগীরা। এ জন্য দুই কিস্তির মোট এক হাজার ৫৩০ কোটি টাকা ছাড় করেছে সরকার। এর মধ্যে জুলাই থেকে সেপ্টেম্বরের জন্য প্রথম কিস্তির ৭৬৫ কোটি টাকা এবং অক্টোবর থেকে ডিসেম্বর পর্যন্ত দ্বিতীয় কিস্তির ৭৬৫ কোটি টাকা ছাড় করা হয়েছে।

অর্থ মন্ত্রণালয় গতকাল বুধবার এ বিষয়ে প্রজ্ঞাপন জারি করেছে। রেমিট্যান্সের সুবিধাভোগীদের ১ জুলাই থেকে প্রণোদনার অর্থ দিতে বাংলাদেশ ব্যাংককে জানিয়েছে বলে অর্থ মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে।

এদিকে, অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল গতকাল সাংবাদিকদের বলেন, এখন থেকে কেউ ব্যাংকে গেলে রেমিট্যান্সের প্রণোদনার টাকা পাবেন। আগামী দু-একদিনের মধ্যে এ সুবিধা পাওয়া যাবে। আগের বকেয়া টাকাও একসঙ্গে তুলতে পারবেন তারা। সচিবালয়ে ক্রয় কমিটির বৈঠক শেষে তিনি আরও বলেন, ‘সিস্টেমে কিছু সমস্যার কারণে প্রণোদনার টাকা দিতে কিছুটা দেরি হয়েছে। এটি নিয়ে যে জটিলতা ছিল সেটির সমাধান হয়েছে। ফলে প্রণোদনার টাকা পাওয়া নিয়ে আর কোনো সংশয় নেই।’

বৈধ পথে (ব্যাকিং চ্যানেল) দেশে রেমিট্যান্স পাঠানো উৎসাহিত করতে চলতি অর্থবছরের বাজেটে ২ শতাংশ নগদ প্রণোদনা দেওয়ার ঘোষণা দেন অর্থমন্ত্রী। এজন্য তিন হাজার ৬০ কোটি টাকা বরাদ্দ দেওয়া হয় এবারের বাজেটে। একজন প্রবাসী সৌদি আরব থেকে ১০০ টাকা ব্যাকিং চ্যানেলে স্বজনদের কাছে পাঠালে তার অ্যাকাউন্টে দুই টাকা প্রণোদনাসহ ১০২ টাকা দেওয়া হবে। বাজেটে এ ঘোষণার পর বৈধ পথে প্রবাসী আয় পাঠানোর প্রবণতা বেড়ে যায়। ১ জুলাই থেকেই এ সুবিধা পাবেন প্রবাসীরা। তবে নীতিমালা তৈরি না হওয়া, অর্থ ছাড়ে বিলম্ব, টাকা পরিশোধের পদ্ধতিসহ নানা জটিলতার কারণে যথাসময়ে নগদ প্রণোদনা পাওয়া যায়নি। এতে কিছুটা হতাশা তৈরি হয় প্রবাসীদের মনে। তবে নীতিমালা হওয়ার পর আশাবাদী হয়েছেন তারা। এর প্রভাব পড়েছে জুলাই থেকে সেপ্টেম্বরের রেমিট্যান্স আয়ে। চলতি অর্থবছরের প্রথম তিন মাসে রেমিট্যান্সে ১৬ দশমিক ৫৮ প্রবৃদ্ধি হয়েছে, মোট এসেছে ৪৫১ কোটি ডলার।

অর্থমন্ত্রী গতকাল সাংবাদিকদের বলেন, বাজেটে নগদ প্রণোদনা ঘোষণায় বৈধ পথে রেমিট্যান্স পাঠাতে উৎসাহিত হচ্ছেন প্রবাসীরা। এর ইতিবাচক প্রভাব দেখা গেছে গত তিন মাসের আয়ে। আশা করা যাচ্ছে, চলতি অর্থবছর শেষে রেমিট্যান্সের পরিমাণ এক হাজার ৮০০ কোটি ডলার ছাড়িয়ে যাবে। গত অর্থবছর দেশে রেমিট্যান্স আসে এক হাজার ৬৪২ কোটি ডলার। এর আগের অর্থবছরে এর পরিমাণ ছিল প্রায় দেড় হাজার কোটি ডলার।

বাজেটে এ বিষয়ে ঘোষণার পর আগস্টে রেমিট্যান্সের প্রণোদনার বিষয়ে নীতিমালা চূড়ান্ত করে বাংলাদেশ ব্যাংক। এতে কোনো প্রবাসী সর্বোচ্চ দেড় হাজার ডলার পর্যন্ত (বর্তমান বিনিময় হার অনুযায়ী এক লাখ ২৭ হাজার ৫০০ টাকা) তাৎক্ষণিকভাবে এ সুবিধা পাবেন। এজন্য কোনো কাগজপত্র লাগবে না। এর বেশি রেমিট্যান্স এলে পাসপোর্টের ফটোকপিসহ প্রয়োজনীয় কাগজপত্র জমা দিতে হবে। অর্থমন্ত্রী গতকাল এ প্রসঙ্গে সাংবাদিকদের বলেন, প্রত্যেক লেনদেনে সর্বোচ্চ দেড় হাজার ডলার পর্যন্ত কোনো প্রশ্ন করা হবে না।

ওয়ার্ল্ড ইকোনমিক ফোরামের সাম্প্রতিক তথ্য অনুযায়ী, ২০১৮ সালে বিশ্বে সবচেয়ে বেশি প্রবাসী আয় অর্জনকারী দেশগুলোর মধ্যে বাংলাদেশের স্থান দশম। বিভিন্ন দেশে বর্তমানে বসবাসরত প্রায় এক কোটির বেশি বাংলাদেশি দেশে রেমিট্যান্স পাঠান। এর মধ্যে সবচেয়ে বেশি আসে মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলো থেকে। সংশ্নিষ্টরা মনে করেন, হুন্ডির মাধ্যমে (ব্যাকিং চ্যানেলের বাইরে) বছরে যে পরিমাণ রেমিট্যান্স আসে, তা বৈধ উপায়ের চেয়ে বেশি। এর একটি বড় কারণ মনে করা হয় রেমিট্যান্স পাঠানোর জন্য অতিরিক্ত খরচ। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রেমিট্যান্স পাঠানোর খরচ কমানোর বিষয়েও বিভিন্ন সময়ে বলে আসছেন। মূলত প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশেই এবারের বাজেটে প্রথমবারের মতো রেমিট্যান্সে নগদ প্রণোদনা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি Alokito Sakal'কে জানাতে ই-মেইল করুন- dailyalokitosakal@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

Alokito Sakal'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। Alokito Sakal | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, Design and Developed by- DONET IT