রেজি. নং- ১৯৬, ডিএ নং- ৬৪৩৪

শনিবার ০৫ ডিসেম্বর ২০২০, ২১শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

১২:০৫ অপরাহ্ণ

শিরোনাম
◈ ধর্মপাশায় সুনই জলমহাল অবৈধভাবে দখলের চেষ্টা, প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন ◈ মাদক কারবারিদের বাড়ির সামনে ছবি টাঙ্গিয়ে দেওয়া হবে—–ধামইরহাটে অপরাধ দমন সভায় অতিরিক্ত পুলিশ সুপার তরিকুল ইসলাম ◈ মৌলবাদী জঙ্গী গোষ্ঠীর ষড়যন্ত্রের  বিরুদ্ধে পত্নীতলায় মানববন্ধন ◈ শ্রদ্ধা ও ভালবাসায় সমাহিত হলেন জনপ্রিয় শিক্ষক ও রাজনৈতিক নেতা দেওয়ান হালিমুজ্জামান ◈ ধামইরহাটে সড়ক ও জনপদের কাছে জনগণের অসন্তোষ-ক্ষোভ প্রকাশ ◈ কুড়িগ্রামে রাজাকার পূত্রের মনোনয়ন বাতিলের দাবীতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ ◈ কালিহাতীতে পরিবার কল্যাণ সেবা ও প্রচার সপ্তাহ উপলক্ষে এ্যডভোকেসি সভা ◈ মানিকগঞ্জে ১৭ পিস ইয়াবাসহ তিন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেপ্তার ◈ শ্রীনগরে মহিলা আওয়ামী লীগ ও যুব মহিলা লীগের বিক্ষোভ মিছিল ◈ শ্রীনগরে বিদেশী মদসহ গ্রেফতার ১

ফেসবুক ভিত্তিক ই-কমার্স গ্রুপ ‘উই’য়ের মাধ্যমে সফল শিরিন শিলা

প্রকাশিত : ১০:০২ AM, ৭ নভেম্বর ২০২০ Saturday ৪১ বার পঠিত

সাজেদুর ‍আবেদিন, সাহিত্য প্রতিনিধ:
alokitosakal

সাজেদুর আবেদীন শান্তঃ শিরিন শিলা থাকেন চাঁদপুর জেলার কচুয়া থানার অধীনে। কচুয়া বঙ্গবন্ধু ডিগ্রি কলেজ থেকে অনার্স এবং কুমিল্লা ভিক্টোরিয়া ডিগ্রি কলেজ থেকে মাস্টার্স শেষ করেন। এরপর সেবিকা হিসেবে সাত বছর কাজ করেন কিন্তু পারিবারিক কারণে চাকরি থেকে অব্যহতি নেয় শিলা।

শিলার স্বপ্ন ছিলো চাকরির পাশাপাশি নিজে কিছু করার, নিজের যোগ্যতায় ও পরিশ্রমের মাধ্যমে সফল হওয়ার। তিনি বিশ্বাস করেন শ্রম আর সততা না থাকলে সফলতা সম্ভব না। তাই তিনি সিদ্ধান্ত নেন দেশীয় পণ্য নিজের হাতে তৈরি কৃত বাচ্চাদের পোশাক নিয়ে কাজ করবেন। কারন তিনি আগে থেকেই পড়াশোনা ও চাকরির পাশাপাশি হাতের কাজ করে নিজের অবসর সময়কে কাজে লাগাত। কিন্তু করোনার এই অবসর সময়কে কাজে লাগাতে তিনি ই- কমার্সের দিকে ঝুকে পরেন। ফেসবুক পেজ ‘নুর বেবি কালেকশনে’র মাধ্যমে তার নিজের তৈরি বাচ্চাদের পোষাক বিক্রি করে।

শিলা বলেন, ‘উদ্যােগের শুরুতে সর্বপ্রথম আমি যে সমস্যায় পড়েছি তা হল কুরিয়ার। সময় মতো পণ্যটি ক্রেতা হাতে পাচ্ছে না, এতে করে অনেক সময় ক্রেতার কটু কথাও নীরবে হজম করতে হয়েছে। এছাড়াও আরেকটা সমস্যা হলো আমি যেহেতু হাতের কাজের বাচ্চাদের পোশাক নিয়ে কাজ করি, সে ক্ষেত্রে আমার কিছু কারিগরের প্রয়োজন পরে কিন্তু আমি তেমন দক্ষ কারিগর পাচ্ছি না। সব কিছু সামলে নেবার পর হয়তো মাঝে মধ্যে পোশাক তৈরি করতে দেরি হয়ে যায়। কাজ করা যতটা কঠিন তার, থেকে বেশি কঠিন হচ্ছে ক্রেতাকে ম্যানেজ করা, তবুও আমি একা হাতে সব করে যাচ্ছি’।

তিনি আরো বলেন, ‘আমি হাতের কাজের বাচ্চাদের পোশাক নিয়ে কাজ করা শুরু করি ফেসবুক ভিত্তিক ই-কমার্স গ্রুপ ‘উই’য়ের হাত ধরে। আমার কাজের সফলতা পেয়েছে একমাত্র ‘উই’তে এসেই। ‘উই’ পাশে না থাকলে হয়তো আমি এতোদুর আসতে পারতাম না’।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি Alokito Sakal'কে জানাতে ই-মেইল করুন- dailyalokitosakal@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

Alokito Sakal'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।




© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। Alokito Sakal | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, Design and Developed by- DONET IT