রেজি. নং- ১৯৬, ডিএ নং- ৬৪৩৪

বৃহস্পতিবার ২৭ জানুয়ারি ২০২২, ১৪ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

০৯:৩৩ অপরাহ্ণ

শিরোনাম
◈ নারায়ণগ‌ঞ্জে শীতলক্ষ্যা থেকে নারী-পুরুষের লাশ উদ্ধার ◈ বুড়িচংয়ে ৩ বিদ্রোহী প্রার্থীসহ ৪ জনকে আ’লীগ থেকে বহিস্কারের লক্ষ্যে কারণ দর্শানোর নোটিশ ◈ যুগান্তরের সিদ্ধিরগঞ্জ প্রতিনিধির ফুফা শ্বশুরের ইন্তেকাল ◈ নবীগঞ্জে সড়ক দুর্ঘটনায় মোটরসাইকেল আরোহী নিহত ◈ ভূরুঙ্গামারীতে পাথরডুবি ইউপি চেয়ারম্যান মিঠু দুর্নীতির মামলায় গ্রেপ্তার ◈ ব্রাহ্মণপাড়ায় মাদকাসক্ত ছেলের হাতে আহত পিতামাতা ◈ গঙ্গাচড়ায় নবনির্বাচিত ইউপি চেয়ারম্যান ও সদস্যদের শপথ গ্রহণ ◈ করিমগঞ্জে তামাক নিয়ন্ত্রণ আইন বাস্তবায়নে উপজেলা টাস্কফোর্স কমিটির সভা অনুষ্ঠিত ◈ নড়াইল লোহাগড়া সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ হারালো মটরবাইক্ চালানো এক যুবক ◈ ভূঞাপুরে ভ্রাম্যমান আদালতের জরিমানা

প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সততা ও নৈতিকতার শিক্ষাদানে “সততা ষ্টোর”

প্রকাশিত : ০৪:১৪ PM, ২০ জানুয়ারী ২০২০ সোমবার ৬৪৭ বার পঠিত

আলোকিত সকাল রিপোর্ট :
alokitosakal

মাসুদা পারভীন, সহকারি শিক্ষক,ডাংমড়কা বাজার সপ্রাবি, দৌলতপুর,কুষ্টিয়া।

মানব চরিত্রের একটি অন্যতম মহৎ গুণ হলো সততা।এই গুণ অর্জনের চেষ্টা এবং চর্চা একজন মানুষকে পৌঁছে দিতে পারে মর্যাদা ও গৌরবের শ্রেষ্ঠতম স্থানে। সৎ লোক মাত্রই চরিত্রবান এবং নৈতিক শক্তিতে বলীয়ান।তাই মানব জীবনে সততার গুরুত্ব আপরিসীম। এজন্য শিশুদের ছেলেবেলা থেকেই সৎ হিসেবে তৈরি করার অভ্যাস গঠন করতে হবে আর তাই শিশুদের সততার অনুশীলন করানো আবশ্যক।এক্ষেত্রে প্রাথমিক স্তরই হচ্ছে সততা ও নৈতিকতা শিক্ষাদানের কেন্দ্রবিন্দু। শিশুদের সৎ ও চরিত্রবান রুপে গড়ে তোলার লক্ষ্যেই বর্তমানে বাংলাদেশের প্রায় প্রতিটি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে স্থাপন করা হয়েছে “সততা ষ্টোর” নামক বিক্রেতা বিহীন শপ যা ট্রাস্ট শপ,সততা ঘর ইত্যাদি বিভিন্ন নামে পরিচিতি লাভ করেছে। এখানে শিশুরাই ক্রেতা কিন্তু বিক্রেতা নেই কেউ-ই। প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রতিষ্ঠিত এই ষ্টোরগুলোতে শিক্ষাসামগ্রী রাখা হয় যার প্রতিটি পণ্যের গায়ে তার মূল্য লেখা থাকে এবং শিশুরা পণ্য নিয়ে নিজ তাগিদে সততা ক্যাশ বাক্সে মূল্য রেখে থাকে।এভাবে পন্য ক্রয়ের মাধ্যমে প্রত্যেকটি শিশু প্রাথমিক স্তর থেকেই সৎ হওয়ার শিক্ষা লাভ করছে যা তাদের ভবিষ্যতে আদর্শবান মানুষ এবং সুনাগরিক হিসেবে গড়ে তুলতে বিশেষ ভূমিকা পালন করবে। প্রতিদিন সততা ষ্টোরের ব্যবহারের মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের মধ্যে যে পরস্পর সৎ হওয়ার প্রতিযোগিতা তৈরি হয়েছে তা শিক্ষার্থীদের জন্য একটি শুভ এবং ইতিবাচক পরিবর্তন আনতে সহায়তা করছে। প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সৎ হওয়ার এই অনুশীলনের মধ্য দিয়ে আজকের শিশুরা আগামী দিনে সৎ মানুষ হয়ে গড়ে উঠবে সেই সাথে নৈতিকতার শিক্ষা নিয়ে দেশ ও জাতি গঠনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালনে সহায়তা করবে। ছোট্ট ছোট্ট শিক্ষার্থীদের ন্যায্য মূল্য পরিশোধের এই চর্চা তাদের মধ্যে যে সততার বীজ বপন করে সেটা তাদের পরবর্তী শিক্ষাজীবন ও কর্মজীবনে সততার আলোকরশ্মি ছড়াবে। তাই প্রাথমিক স্তর থেকেই শিশুদের মধ্যে সততা ও নৈতিকতাবোধ জাগ্রত করাতে প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোতে সততা ষ্টোর স্থাপন এবং এর নিয়মিত ব্যবহার অপরিহার্য।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি Alokito Sakal'কে জানাতে ই-মেইল করুন- dailyalokitosakal@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

Alokito Sakal'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

© ২০২২ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। Alokito Sakal | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, Design and Developed by- DONET IT