রেজি. নং- ১৯৬, ডিএ নং- ৬৪৩৪

বুধবার ১৯ জানুয়ারি ২০২২, ৬ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

১০:৫৭ পূর্বাহ্ণ

শিরোনাম
◈ সাটুরিয়ায় গৃহবধূকে ধর্ষণ চেষ্টায় একজন গ্রেফতার ◈ তাহিরপুর হাওর পাড়ে বৃক্ষরোপণের স্থান পরিদর্শন করেন,ইউএনও ◈ সরকারি কাজে বাধা, যুবকের তিনমাস কারাদণ্ড ◈ গজারিয়ায় কম্বিং অভিযানে ১০ হাজার মিটার কারেন্ট জাল ও ২ টি বেহুন্দি জাল আটক করে -কোস্ট গার্ড ◈ বান্দরবানে সেনা জোনে ১১০ ব্রিগেড সিগন্যাল কোম্পানী প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী অনুষ্ঠিত ◈ শাহজাদপুরে আইনজীবীদের আদালত বর্জন অব্যাহত ◈ জুতা পরে কমলমতি শিশুদের ক্লাসে ঢুকতে দেয় না প্রধান শিক্ষক ◈ রবিবা’র আধুনিক তথ্যপ্রযুক্তির ব্যবহার বিষয়ে দুই প্রতিষ্ঠানের সাথে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত ◈ পাকুন্দিয়ায় শীতকালীন ক্রীড়া প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত ◈ ভূঞাপুরে কর্মসৃজন প্রকল্পের কাজের উদ্বোধন

অসহায় এতিম শিশুর খোঁজে প্রবাসী মীর সোহেল রানা

প্রকাশিত : ০৬:১৯ PM, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০ বুধবার ১৬৮ বার পঠিত

আলোকিত সকাল রিপোর্ট :
alokitosakal

শামীম শিকদার, কাপাসিয়া প্রতিনিধি :
প্রাণঘাতি করোনাভাইরাসের থাবায় থমকে গেছে বিশ্ব। শহর থেকে প্রত্যন্ত গ্রাম এখনো স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরতে পারেনি। চারিদিকে করোনাভাইরাস আতঙ্ক কাটেনি এখনো। অনেকেই দুঃসময় পার করছে। ঠিক সেই সময় কাপাসিয়ায় মীর সোহেল রানা নামে এক প্রবাসী হতদরিদ্র মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন। নিজেস্ব অর্থায়নসহ সহযোগিতা ফাউন্ডেশনের মাধ্যমে মানুষের ঘরে ঘরে পৌঁছে দিয়েছেন তার সহযোগিতা। দায়িত্ব নিয়েছেন দরিদ্র এতিম ছাত্রের। দিচ্ছেন লেখা-পড়ার যাবতীয় খরচ।

জানা গেছে, মীর সোহেল রানা একজন সৌধি আরব প্রবাসী। দেশের বাহিরে থাকছেন ১৩ বছর ধরে। তবুও কাজ করছেন নিজ এলাকার অসহায় হতদরিদ্র মানুষের কল্যাণে। নিয়মিত খোঁজ-খবর নিচ্ছেন তাদের। নিজে সরাসরি কাজ করতে না পারলেও সহযোগিতা ফাউন্ডেশনের মাধ্যমে তা অব্যাহত রয়েছে বলে তিনি জানান। বর্তমানে তিনি ফাউন্ডেশনের সহ-সভাপতির দায়িত্ব পালন করছেন। নিজের কাজের ফাঁকে সংগঠনের জন্য সংগ্রহ করছেন ফান্ড। দুর্যোগকালীন সময় অসহায় মানুষদের জন্য বিতরণ করছেন বিভিন্ন প্রয়োজনীয় সামগ্রী। সংগঠন ছাড়াও মীর সোহেল তার ব্যক্তিগত উদ্যোগে অংশগ্রহন করছেন সামাজিক কর্মকান্ডে।
ফাউন্ডেশন সূত্রে জানা যায়, তাদের সেচ্ছাসেবী সংগঠনের বৃহৎ অর্থ মীর সোহেল রানা সংগ্রহ করেন। ব্যক্তিগত ভাবেও অনেক অর্থ দিয়েছেন মানুষের কল্যাণে। তিনি করোনা দুর্যোগের শুরুতে ঘোষণা দিয়েছিলেন, উপজেলার কাউকে না খেয়ে অভুক্ত থাকতে হবে না। ইমাম-মুয়াজ্জিনসহ দলমত নির্বিশেষে সর্বস্তরের মানুষদের পর্যাপ্ত ত্রাণ সামগ্রী প্রদান করেছেন। এ ছাড়া সাধারণ মানুষের জন্য মাস্ক, হ্যান্ড স্যানেটাইজার ও সাবানসহ বিভিন্ন সামগ্রী বিতরণ করেছেন। তিনি কাপাসিয়া উপজেলায় কর্মহীন হতদরিদ্র মানুষের মাঝে খাদ্য সামগ্রী দিয়েছেন। মানুষের ঘরে ঘরে পৌছে দিয়েছেন ঈদ উপহার। দায়িত্ব নিয়েছেন অসহায় এতিম ছাত্রের। সমাজে অবহেলিত অক্ষম ব্যক্তিদের চিকিৎসা সেবার ব্যবস্থা করছেন মীর সোহেল। তাই এলাকার মানুষের সুখে-দুঃখে সঙ্গী হয়ে আছেন তিনি।

সহযোগিতা ফাউন্ডেশনের সহ-সভাপতি মীর সোহেল রানার কাছে এ ব্যাপারে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ২০১২ সালে প্রথম মাদক নিয়ন্ত্রণে কাজ করার মাধ্যমে আমাদের যাত্রা শুরু। আমি এতিমদের নিয়ে কাজ করতে চাই। এখনও এতিম শিশুদের খোঁজে আমরা কাজ করছি। লেখা-পড়ার দায়িত্ব নিয়েছি। আমার স্বপ্ন একটি এতিমখানা করব। এদের নিয়ে কাজ করার পর নিজের শখগুলোও কমে গেছে। নিজের বাড়তি খরচগুলো কমিয়ে তাদের জন্য অর্থ দিচ্ছি। আমি একটি সমৃদ্ধশালী কাপাসিয়া গড়তে চাই।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি Alokito Sakal'কে জানাতে ই-মেইল করুন- dailyalokitosakal@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

Alokito Sakal'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

© ২০২২ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। Alokito Sakal | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, Design and Developed by- DONET IT