রেজি. নং- ১৯৬, ডিএ নং- ৬৪৩৪

মঙ্গলবার ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৪ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

০৮:৫২ পূর্বাহ্ণ

শিরোনাম
◈ চারটি নদী বন্দরে কাকলী প্রধানের আলোকচিত্র প্রদর্শনী ‘নদী নেবে!’ ◈ এতিমদের সাথে নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিন উদযাপন করলো নোয়াখালী জেলা পুলিশ সুপার ◈ জাতির জনকের চিন্তা-চেতনা আর প্রধানমন্ত্রীর ভাবনা এক হওয়ায় বাঙালী জাতির আর্শিবাদ হয়ে দেশ উন্নয়নের পথে ধাবিত হয়েছে : শেখ আফিল উদ্দিন এমপি ◈ জন্মদিনে প্রধানমন্ত্রী উপহার পাঠালেন মমতা ব্যানার্জি ◈ ধর্মপাশায় শেখ হাসিনার জন্মদিন উপলক্ষে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত ◈ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা’র জন্মদিন উপলক্ষে পুঠিয়া আ’লীগের আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল ◈ শার্শায় শেখ হাসিনার জন্মদিনে ৩ হাজার বৃক্ষ বিতরণ ◈ কোম্পানীগঞ্জে নিজ ঘরে ধর্ষণের শিকার শিশু, আটক ১ ◈ প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিনে সিরাজগঞ্জে এতিমদের মাঝে যুবলীগের খাবার বিতরণ ◈ সোনাতলায় ইউপি সদস্য কর্তৃক সাংবাদিক লাঞ্চিত ঘটনায় ইউএনও বরাবরে অভিযোগ

নেত্রকোনায় অপরূপ সৌন্দর্যের সমাহার কলমাকান্দা পাতলাবন গ্রাম

প্রকাশিত : ১০:২৩ PM, ৬ সেপ্টেম্বর ২০২০ Sunday ৬২ বার পঠিত

আলোকিত সকাল রিপোর্ট :
alokitosakal

হৃদয় আহমেদ, কলমাকান্দা প্রতিনিধিঃ

নেত্রকোনা জেলা শহর থেকে একদম উওরে অবস্থিত কলমাকান্দা উপজেলা। ভারতের মেঘালয় ঘেঁষা উপজেলার রংছাতি ইউনিয়নে এই অপরূপ সৌন্দর্যের সমাহার গ্রামটিই হচ্ছে পাতলাবন গ্রাম।

গ্রামটি কে ঘিরে রয়েছে নানা ধরনের অপরূপ সৌন্দর্য। আর এই অপরূপ সৌন্দর্য উপভোগ করতে দূরদূরান্ত থেকে ছুটে আসে অপরূপ সৌন্দর্য উপভোগ কারী প্রেমিরা।

পাহাড়, নদী, বালুচর মিলে এক প্রকৃতির অপরূপ সৌন্দর্যের মিশ্রন এই পাতলাবন। যাতায়াত দূরাবস্থা আর সম্প্রচার মাধ্যমে দৃষ্টিগোচর হয়নি বলে এখনো অনাবিস্কৃত রয়েছে পাতলাবনের এই গ্রামটি।
প্রতিদিন বিকেল এখানে সবুজ মাঠ অার বালুচরে ভ্রমণ পিপাসীরা ভিড় করে।মেঘালয় পাহাড় থেকে বয়ে অাসা নদী, সবুজ মাঠ, বালুচর, সবুজ ধানক্ষেত মিলে পাতলাবন এই গ্রামটি। সীমান্তে বাংলাদেশ অংশের কিছু কিছু টিলা এতে ভিন্ন মাত্রা যোগ রয়েছে।

পাশেই আদিবাসী গারোদের বাস। সন্ধ্যা হলেই অাদিবাসীদের সংস্কৃতি, রীতি নীতি, ডোলের মাদল অাপনাকে ভিন্ন একটি জাতিসত্তার সাথে পরিচয় ঘটাবে। টিলার উপরে বিলুপ্ত প্রায় মাচাঙ ঘরে তাদের বসবাস। পাহাড় থেকে নদীতে বয়ে অাসা বড় বড় পাথর অার মাচাঙ ঘড়েই তাদের ঐতিহ্য।

গারোদের অকৃত্রিম সরলতা, পাহাড়ের নিরবতা, নদীর বহতা, আর দুই পাশের গ্রামীণ জনপদ অাপনাকে নিটোল চিত্রের সাথে আলাপ করিয়ে দিবে।

সময় অার ঋতুর সাথে পাতলাবনের রূপ বদলায়। বর্ষা কালে পাহাড়ি ঢল। পাহাড়ি ঝর্নাধারা থেকে বয়ে অাসা সেই স্বচ্ছ জলে সর্বদাই অানন্দ মিলে। যেখানের স্বচ্ছ জলে পড়ন্ত বিকেলে ছোট ডিঙায় করে ঘুরে বেড়ানোর সুযোগও রয়েছে।

আধুনিক নাগরিক সুবিধা তথা বিজলির আলো পর্যন্ত পৌঁছায়নি এলাকাটিতে। অজপাড়া গাঁ বলতে যা বুঝায়। কিন্তু অভাব নেই প্রাকৃতিক মুক্ত আলো বাতাস আর নৈসর্গিকতর। তবে আধুনিক শিক্ষার আলোয় আলোকিত পাতলাবন।

প্রায় ২০-৫০ জন মেধাবী সন্তান পাতলাবনের কোল থেকে উঠে এসে ঢাকা ইউনিভার্সিটি সহ বিভিন্ন ইউনিভার্সিটিতে পড়ালেখা করে দেশের উচ্চ পদে থেকে দেশের সেবায় নিয়োজিত।

এছাড়াও প্রতি বছর এখান থেকে ২-৫ জন শিক্ষার্থী বিভিন্ন ইউনিভার্সিটিতে ভর্তি হয়। বলা হয়ে থাকে প্রাকৃতিক অপার এ সৌন্দর্যই এখানকার সবচেয়ে বড় বিদ্যাপীঠ আলোর আধার।

আশেপাশে আরো কিছু দেখার মত জায়গা রয়েছে। যেগুলোর মধ্যে ভুবনের টিলা, জাইগিরপাড়া, সাত সওদাগরের চান্দ্রডিঙা, পাহাড়ের পাশদিয়ে সীমান্ত সড়কে মোটর বাইক রাইড সব মিলিয়ে ভালো লাগার মন মাতানো পাতলাবন আপনার ভালো না লেগে পারেই না।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি Alokito Sakal'কে জানাতে ই-মেইল করুন- dailyalokitosakal@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

Alokito Sakal'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।




© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। Alokito Sakal | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, Design and Developed by- DONET IT