রেজি. নং- ১৯৬, ডিএ নং- ৬৪৩৪

মঙ্গলবার ০১ ডিসেম্বর ২০২০, ১৭ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

১১:৪৬ পূর্বাহ্ণ

শিরোনাম
◈ ভিবিডি গোপালগঞ্জ জেলা কর্তৃক আয়োজিত “আনন্দ আহার” ◈ সম্প্রীতির হবিগঞ্জ সংগঠনের জেলা শাখার সিনিয়র সদস্য নির্বাচিত হলেন শুভ আহমেদ ◈ কবিতা : শীতের পিঠা – মোঃ শহিদুল ইসলাম ◈ ধামইরহাটে জঙ্গিবাদ মৌলবাদ ও সাম্প্রদায়িকতার বিরুদ্ধে যুবলীগের বিক্ষোভ সমাবেশ ◈ ধামইরহাটে দার্জিলিং জাতের কমলার চারা রোপন ◈ ধামইরহাটে মাস্ক না পরায় বিভিন্ন শ্রেনি পেশার মানুষের জরিমানা, সচেতন করতে রাস্তায় নামলেন এসিল্যান্ড ◈ সকল ক্ষেত্রে প্রতিবন্ধীদের প্রবেশগম্যতা নিশ্চিত করার আহ্বান ◈ ধামইরহাটে অজ্ঞাত রোগে মাছে মড়ক, ৩০ লাখ টাকার ক্ষতিতে মৎস্যচাষী’র হাহাকার ◈ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আমলেই জনকল্যানমূলক কাজ সবচেয়ে বেশি হয়েছে- এমপি শাওন ◈ উদয়কাঠী ইউনিয়ন পরিষদের স্মার্ট কার্ড বিতরনের উদ্বোধন করেন চেয়ারম্যান ননি

কঠোর হস্তে জঙ্গিবাদ দমন করেছেন শেখ হাসিনা

প্রকাশিত : ০৭:৪৪ PM, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯ Friday ২৪৩ বার পঠিত

আলোকিত সকাল রিপোর্ট :
alokitosakal

ক্যাসিনো চালুর দায়ে বিএনপি নেতাদের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেয়া দরকার বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ।

শুক্রবার দুপুরে রাজধানীর মহানগর নাট্যমঞ্চে ইউনাইটেড ইসলামিক পার্টি আয়োজিত আলেম, ওলামা ও মাশায়েখবৃন্দের জঙ্গিবাদ বিরোধী মহাসমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ মন্তব্য করেন।

সরকারের এই তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘বিএনপি-জামায়াত সরকারের সময় মির্জা আব্বাস, ফালু, সাদেক হোসেন খোকা- এরা ক্যাসিনো চালু করেছিল। যারা ক্যাসিনো পরিচালনা করছে, তারা যেমন দায় এড়াতে পারে না, যারা চালু করেছে, তারাও দায় এড়াতে পারে না। এ কারণে তাদের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেয়া দরকার।’

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুলের উদ্দেশ্যে মন্ত্রী বলেন, ‘কথা না বলে আপনাদের যেসব নেতা ক্যাসিনো চালু করেছিল, তাদের নানা পদ থেকে সরান, বহিস্কার করুন, তারপর কথা বলুন।’

বিএনপির বিরুদ্ধে জঙ্গিমদদের অভিযোগ এনে মন্ত্রী বলেন, ‘বেগম খালেদা জিয়া- জামায়াতের আমলে বাংলাদেশকে জঙ্গিদের অভয়ারণ্য বাননো হয়েছিল। শায়খ আব্দুর রহমান, বাংলা ভাইয়ের উত্থান, সারাদেশে ৬৪ জেলায় একযোগে বোমা হামলা, আদালতে বোমা, শেখ হাসিনার জীবননাশের জন্য রাষ্ট্রীয় পৃষ্ঠপোষকতায় একুশে আগস্টের গ্রেনেড হামলা, সবই তাদের ছত্রছায়ায় হয়েছে।’

তিনি বলেন, ‘বেগম জিয়া ইসলামের কথা বলে শুধু ভোট নিয়েছেন, ইসলামের কোন কাজ করেননি, আর অপরদিকে শেখ হাসিনাই প্রথম এদেশের ওলামাদের একশ বছরের পুরনো দাবি কওমী মাদ্রাসার স্বীকৃতি দিয়েছেন, যা বৃটিশ এবং পাকিস্তানি আমল থেকে দাবিকৃত। শেখ হাসিনার সরকার ৭০ হাজার মক্তব স্থাপন করে সেখানে ওলামাদের নিয়োগ দিয়েছে, প্রতিটি উপজেলায় ১২ থেকে ২০ কোটি টাকা ব্যয়ে মসজিদ নির্মাণ হচ্ছে। এসব কাজ কেউ আগে করেনি।’

তিনি বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রীর পূর্বপুরুষ বাগদাদ থেকে এদেশে ধর্মপ্রচারের জন্য এসেছিলেন। ইসলামী লেবাসও বেগম জিয়ার মধ্যে নয়, শেখ হাসিনার মধ্যেই দেখা যায়।’

মন্ত্রী বলেন, ‘ইসলাম সন্ত্রাস বা জঙ্গিবাদ সমর্থন করে না। ইসলাম শান্তির ধর্ম। মহানবী মুহাম্মদ (সাঃ) তরবারির নিচে নয়, শান্তির সুশীতল ছায়াতলে মানুষকে আহ্বান করে ইসলাম প্রতিষ্ঠা করেছেন। বাংলাদেশসহ এ উপমহাদেশেও কোনো যুদ্ধ বিগ্রহের মাধ্যমে নয়, ওলী-আকরামদের আহ্বানে সাড়া দিয়ে মানুষ ইসলামের সুশীতল ছায়ায় এসেছে। যারা ইসলামের ভুল ব্যাখ্যা দিয়ে আমাদের কোমলমতি সন্তানদের বিপথে নেবার অপচেষ্টায় লিপ্ত, তারা শুধু সমাজেরই ক্ষতি করছে না, ইসলামের গায়েও কালিমা লেপন করছে।’

বাংলাদেশ ইউনাইটেড ইসলামিক পার্টির চেয়ারম্যান মাওলানা ইসমাইল হোসাইনের সভাপতিত্বে সমাবেশে আরো বক্তব্য রাখেন ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ, ডিবিসি ২৪ টিভি চ্যানেলের চেয়ারম্যান ইকবাল সোবহান চৌধুরী, বাংলাদেশে ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের মহাসচিব শাবান মাহমুদ প্রমুখ।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি Alokito Sakal'কে জানাতে ই-মেইল করুন- dailyalokitosakal@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

Alokito Sakal'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।




এই বিভাগের জনপ্রিয়

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। Alokito Sakal | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, Design and Developed by- DONET IT