রেজি. নং- ১৯৬, ডিএ নং- ৬৪৩৪

শনিবার ১৮ জানুয়ারি ২০২০, ৫ই মাঘ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

০৬:২৩ অপরাহ্ণ

শিরোনাম
◈ আনোয়ারায় অবৈধভাবে ভাবে বালি ও মাঠি কাটায় ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান আটক ট্রাক ২ এবং খননযন্ত্র ২ ◈ রাজশাহীতে ভ্রাম্যমান আদালতে ঠিকাদারের কারাদন্ড ◈ বালাগঞ্জ উপজেলা অফিসার্স ক্লাবের বার্ষিক বনভোজন সম্পন্ন ◈ অবসর জীবন সসতার সাথে কাটিয়ে যেতে সকলের দোয়া প্রত্যাশী বিজিবি সদস্য আব্দুল গফুর ◈ সোস্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে স্বজনরা চারযুগ পরে পেয়েছেন হাবিবুর রহমান কে। ◈ দোয়ারাবাজারে নসকস এর নির্বাচন সম্পন্নসভাপতি, হাসান সেক্রেটারি ◈ শিখর ফাউন্ডেশন এর উদ্যোগে কম্বল বিতরন ◈ নরসিংদীর শিবপুরে বাসচাপায় নিহত ১ আহত ৪ ◈ ধামরাইয়ে বাসচাপায় এক পথচারী নিহত ◈ রাজশাহীতে এশিয়ান টিভির বর্ষপূর্তি পালিত

সিরাজদিখানে আলুক্ষেত পরিচর্যায় চাষিরা

প্রকাশিত : ০৬:২১ AM, ১৪ জানুয়ারী ২০২০ Tuesday ২৬ বার পঠিত

আলোকিত সকাল রিপোর্ট :
alokitosakal

দেশের অন্যতম বৃহৎ আলু উৎপাদনকারী অঞ্চল মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখান। এ জেলাজুড়ে অনেক জমিতে আলু আর আলু চারায় সবুজের সমারোহ।

তাই উত্তোলন করার পূর্বে শেষ মুহূর্তে আলুচারার পরিচর্যায় এখন ব্যস্ত এ অঞ্চলের কৃষক। টানা কয়েকদিনের ঘন কুয়াশা ও মৃদু শৈত্যপ্রবাহে আলুচাষিরা উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েছেন।

উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর বলছে, এখন পর্যন্ত ঘন কুয়াশা ও শৈত্যপ্রবাহে কোনো ক্ষতি হয়নি। তবে এ অবস্থা চলতে থাকলে আলুর ফলন কম হওয়ার আশঙ্কা দেখা দিতে পারে।

গেল কয়েক বছরের লোকসান পুষিয়ে লাভের মুখ দেখার আশায় বুক বেঁধে আছেন প্রায় ৩ হাজার আলুচাষি। সরেজমিন ইছাপুরা, মধ্যপাড়া, রশুনীয়া, কোলা, বয়রাগাদী ইউনিয়ন ঘুরে আলুর জমি পরিচর্যায় কৃষকের ব্যস্ততা দেখা গেছে।

ফেব্রুয়ারি মাসের শেষে মার্চের শুরুতেই উপজেলার গ্রামগুলোতে আলু উত্তোলনের মহোৎসব শুরু হতে পারে। এবার মার্চের প্রথম ও দ্বিতীয় সপ্তাহে আলু উত্তোলনের প্রস্তুতি নিচ্ছে কৃষকরা। তাই শেষ মুহূর্তে আলুর জমিতে পরিচর্যার কাজ করছেন।

কোলা ইউনিয়নের রক্ষিতপাড়া গ্রামের আলুচাষি আলমগীর হোসেন জানান, ‘এবার তিনি ৪ বিঘা জমিতে আলু আবাদ করেছেন। এখন পর্যন্ত আবাদ ভালো আছে। তার এলাকার অন্য চাষিদের আবাদও ভালো আছে।

তবে খারাপ আবহাওয়ার কারণে আলুর রোগ-বালাই ছড়িয়ে পড়তে পারে। এজন্য কৃষি অফিসের পরামর্শে তারা জমিতে নিয়মিত বালাইনাশক স্প্রে করছেন।’

উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের তথ্য অনুযায়ী বাংলাদেশে বছরে আলুর চাহিদা প্রায় ৭৯ লাখ মেট্রিক টন আর বিদেশে রপ্তানি হয় প্রায় ৫ লাখ মেট্রিক টন। অথচ উৎপাদন হয় ১ কোটি ৫ লাখ মেট্রিক টন।

চাষিরা মনে করেন, চাহিদার তুলনায় উৎপাদন বেশি হওয়ায় প্রতি বছর লোকসান গুনতে হচ্ছে তাদের । এ বছর ৯ হাজার ২শ হেক্টর জমিতে আলু আবাদ করা হয়েছে। গত বছর করা হয়েছিল ৯ হাজার ৩৫০ হেক্টর। প্রতিবছর লোকসানের কবলে পড়ায় আলুচাষে চাষিদের অনীহা দেখা দিয়েছে।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা সুবোধ চন্দ রায় জানান, ‘মাটি ও জলবায়ু অনুকূলে থাকায় এ বছরও উপজেলা লক্ষ্যমাত্রার বেশি আলুর ফলন হবে বলে ধারণা করছি। এখন পর্যন্ত এ আবহাওয়ায় ফসলের কোনো ক্ষতি হয়নি। তবে এই আবহাওয়া চলমান থাকলে আলুর ক্ষতি হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে।’

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি Alokito Sakal'কে জানাতে ই-মেইল করুন- dailyalokitosakal@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

Alokito Sakal'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।




মুজিববর্ষ: বঙ্গবন্ধুর শততম জন্মবার্ষিকী উদযাপন
57 58 days 08 09 hours 36 37 minutes 49 50 seconds

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। Alokito Sakal | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, Design and Developed by- DONET IT