রেজি. নং- ১৯৬, ডিএ নং- ৬৪৩৪

সোমবার ২০ জানুয়ারি ২০২০, ৭ই মাঘ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

০১:১৮ পূর্বাহ্ণ

শিরোনাম
◈ রায়পুরে মাস ব্যাপী শিল্প ও পন্য মেলার উদ্ভোধন ◈ গৌরীপুরে বিশেষ অভিযানে গ্রেফতার ১১ ◈ চকরিয়া কোরক বিদ্যাপীঠের ঐতিহ্য ধরে রাখতে যা করা দরকার তাই করব- এমপি জাফর আলম ◈ বইমেলায় আসছে শাম্মী তুলতুলের ‘ভূত যখন বিজ্ঞানী’ ◈ ছাতকে কুরশী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরুস্কার বিতরনী অনুষ্ঠিত ◈ ২০ জানুয়ারি শহীদ আসাদ দিবস ◈ শাহরাস্তিতে পিতাকে কুপিয়ে হত্যা, গুরুতর আহত মা ◈ আগামীকাল রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাতা জননেতা মাদার বখশ’র ৫৩ তম মৃত্যুবার্ষিকী ◈ নবীগঞ্জে আখল মিয়া’র পরিবারের সৌজন্যে শীতার্তদের মধ্যে শীতবস্ত্র বিতরণ ◈ কুড়িগ্রামে কুটির শিল্প পন্য মেলার উদ্বোধন

প্রাকৃতিক সৌন্দর্যে ভরা বাঁশখালী ইকোপার্ক

প্রকাশিত : ০৭:৫৪ PM, ১৩ জানুয়ারী ২০২০ Monday ১০০ বার পঠিত

আলোকিত সকাল রিপোর্ট :
alokitosakal

মনোরম প্রাকৃতিক পরিবেশে চট্টগ্রাম জেলার বাঁশখালী উপজেলায় উঁচু-নিচু পাহাড়, লেকের স্বচ্ছ পানি ও বনাঞ্চল ঘিরে গড়ে উঠেছে বাঁশখালী ইকোপার্ক। ২০০৩ সালে জীববৈচিত্র্য রক্ষা, বন্যপ্রাণীর আবাস্থল উন্নয়ন, ইকো ট্যুরিজম ও চিত্তবিনোদনের উদ্দেশ্যে প্রায় ১,০০০ হেক্টর বনভূমি নিয়ে চট্টগ্রাম শহর থেকে ৫৫ কিলোমিটার দূরে সরকারি উদ্যোগে বাঁশখালী ইকোপার্ক নির্মাণ করা হয়। ১৯৮৬ সালে প্রায় ৭,৭৬৪ হেক্টর বনভূমি নিয়ে চুনতি অভয়ারণ্য গড়ে তোলার ঘোষণা দিলে বাঁশখালীর বামের ছড়া ও ডানের ছড়া এই অভয়ারণ্যের অন্তর্ভুক্ত করা হয়।

প্রকৃতির ভিন্ন ভিন্ন ঋতু বৈচিত্র্যের সাথে বাঁশখালী ইকোপার্কের সৌন্দর্যও পরিবর্তিত হতে থাকে। প্রাকৃতিক সৌন্দর্যমণ্ডিত পার্কের ৬৭৪ হেক্টর বনভূমিতে ঝাউ বাগান, ভেষজ উদ্ভিদের বন ও অর্নামেন্টাল গাছসহ প্রায় ৩১০ প্রজাতির উদ্ভিদ রয়েছে। আঁকাবাঁকা পাহাড়ি সড়ক, চারপাশে ঘন সবুজের সমারোহ, বন্যহাতির বিচরণ, চেনা-অচেনা পাখির মন-মাতানো কিচিরমিচির শব্দ, দেশের দীর্ঘতম ঝুলন্ত সেতু, সুউচ্চ টাওয়ার— কী নেই এখানে। চট্টগ্রামের বাঁশখালী বহুমুখী আরণ্যক সৌন্দর্য ও নয়নাভিরাম প্রাকৃতিক দৃশ্যাবলী পর্যটকদের কাছে টানে।

পার্কের উল্লেখযোগ্য স্থাপনার মধ্যে রয়েছে পিকনিক স্পট, দ্বিতল রেস্ট হাউজ, হিলটপ কটেজ, রিফ্রেশমেন্ট কর্ণার, দীর্ঘতম ঝুলন্ত ব্রিজ, ওয়াচ টাওয়ার এবং মিনি চিড়িয়াখানা। পার্কের দুটি সুবিশাল লেকে রয়েছে মাছ ধরার যাবতীয় সুব্যবস্থা। ২০১১ সালের ২১ আগস্ট বাঁশখালী ইকোপার্কে বন্যপ্রাণী ও উদ্ভিদের তথ্য সম্বলিত একটি তথ্য ও শিক্ষা কেন্দ্র নির্মাণ করা হয়।

এছাড়া এখানে মায়া হরিণ, চিত্রা হরিণ, চিত্রা বিড়াল, বাঘ, মেছো বাঘ ও পাখির প্রজনন কেন্দ্র রয়েছে। শীতকালে অতিথি পাখির কলরবে সরব হয়ে উঠে এই ইকোপার্কের সবুজ প্রকৃতি। ইকোপার্কের সুউচ্চ পাহাড়ে দাঁড়িয়ে বঙ্গোপসাগরের অথৈ জলরাশি, পাহাড়ের কোল ঘেঁষে বয়ে চলা ঝরনাধারা আর বিকাল বেলায় সূর্যাস্তের নয়নাভিরাম দৃশ্য পর্যটকদের মোহিত করে।

কীভাবে যাবেন

বাঁশখালী ইকোপার্কে যেতে হলে প্রথমে চট্টগ্রাম শহরে আসতে হবে। চট্টগ্রামের বাঁশখালী থেকে ৫ কিলোমিটার দূরে বাঁশখালী ইকোপার্ক অবস্থিত। চট্টগ্রাম থেকে বাস বা সিএনজিতে বাঁশখালী যেতে দুই থেকে আড়াই ঘণ্টার মতো সময় লাগে।

ঢাকা থেকে সড়ক, রেল বা আকাশপথে চট্টগ্রাম যাওয়া যায়। সড়কপথে ঢাকার সায়েদাবাদ থেকে সৌদিয়া, ইউনিক, টিআর ট্র্যাভেলস, গ্রিনলাইন ও হানিফ এন্টারপ্রাইজের বিভিন্ন বাস চট্টগ্রামের পথে যাওয়া যায়। ঢাকার কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশন থেকে সুবর্ণ, তূর্ণা-নিশিথা, মহানগর কিংবা চট্টগ্রাম মেইল ট্রেনে চট্টগ্রাম যেতে পারবেন। আর কম সময়ে যেতে চাইলে শাহ্‌জালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে ডোমেস্টিক এয়ারলাইন্সে মাত্র ৪৫ মিনিটে ঢাকা থেকে সরাসরি চট্টগ্রাম যাওয়া যায়।

কোথায় থাকবেন

চট্টগ্রামের স্টেশন রোড, জেএসসি মোড় বা আগ্রাবাদ এলাকায় বিভিন্ন মানের হোটেল খুঁজে পাবেন। আবাসিক হোটেলের মধ্যে হোটেল স্টার পার্ক, হোটেল ডায়মন্ড পার্ক, হোটেল মিসখা, হোটেল হিল টন সিটি, এশিয়ান এসআর হোটেল, হোটেল প্যারামাউন্ট, হোটেল সাফিনা ও হোটেল সিলমন উল্লেখযোগ্য।

কোথায় খাবেন

বাঁশখালীতে সাধারণ মানের বেশ কিছু হোটেল ও মনছুড়িয়া বাজারে খুচরা চা-নাস্তার দোকান আছে। এছাড়া চট্টগ্রাম শহরে বাঙালি, চাইনিজ বা ফাস্টফুডের বেশ কিছু ভালো মানের রেস্টুরেন্ট আছে। আর সুযোগ থাকলে অবশ্যই চট্টগ্রামের জনপ্রিয় মেজবানি খাবার ও কালা ভুনা খেয়ে দেখবেন।

চট্টগ্রামের অন্যান্য দর্শনীয় স্থান: চট্টগ্রামের অন্যান্য দর্শনীয় স্থানের মধ্যে ওয়ার সিমেট্রি, ফয়েজ লেক, মহামায়া লেক, জাম্বুরি পার্ক, চন্দ্রনাথ পাহাড়, হাজারিখিল অভয়ারণ্য ছাড়াও বেশকিছু আকর্ষণীয় ঝরনা রয়েছে।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি Alokito Sakal'কে জানাতে ই-মেইল করুন- dailyalokitosakal@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

Alokito Sakal'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।




মুজিববর্ষ: বঙ্গবন্ধুর শততম জন্মবার্ষিকী উদযাপন
56 57 days 01 02 hours 41 42 minutes 48 49 seconds

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। Alokito Sakal | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, Design and Developed by- DONET IT